ছয় বছরের শিশুকে ধর্ষণ, গণপিটুনির পর যুবক গ্রেফতার

দিনাজপুরের সদর উপজেলার ৮নং রেল ঘুন্টি এলাকায় ছয় বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে সোনা মিয়া নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

শুক্রবার রাতে ধর্ষণের ঘটনাটি জানাজানি হলে সোনা মিয়াকে পিটুনি দিয়ে সদর থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে এলাকাবাসী। শিশুটিকে শুক্রবার বিকেলে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করানো হয়েছে।

সোনা মিয়া (২৩) দিনাজপুর সদর উপজেলার ৮নং রেল ঘুন্টি এলাকার পশ্চিম নিশ্চিন্তপুরের মো. নুর ইসলামের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার বেলা ১২টার দিকে শহরের ৮নং রেল ঘুন্টি পশ্চিম নিশ্চিন্তপুর এলাকার মো. নুর ইসলামের ছেলে মো. সোনা মিয়া একই এলাকার ওই শিশুকে ফুসলিয়ে রেল ঘুন্টি এলাকা থেকে কিছুটা দূরে একটি ফাঁকা মাঠে নিয়ে যায়। ফাঁকা মাঠে শিশুকে ধর্ষণ করে সোনা মিয়া। পরে শিশুটি কান্না করতে করতে বাড়ি ফিরলে পরিবারের লোকজন জিজ্ঞেস করাতে শিশুটির সঙ্গে নির্যাতনের বিষয়টি পরিবারের সদস্যদের জানায়।

পরে ঘটনাটি জানাজানি হলে সোনা মিয়া পালিয়ে যায়। শুক্রবার রাতে এলাকাবাসী সোনা মিয়াকে দেখতে পেয়ে আটক করে। আটকের পর সোনা মিয়াকে গণপিটুনি দেয় এলাকাবাসী। খবর পেয়ে পুলিশ এসে সোনা মিয়াকে রাতেই থানায় নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে দিনাজপুর কোতোয়ালি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মোজাফফর হোসেন বলেন, ‘শিশুটির বাবা সোনা মিয়ার বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করলে শুক্রবার রাতেই তাকে আটক করা হয়।

তিনি আরও জানান, শনিবার সোনা মিয়াকে আদালতে প্রেরণ করা হয়। শিশুটিকে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।