ঠিকাদার শামিমের জব্দ ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলে দেওয়ার আবেদন খারিজ

রাজধানীর নিকেতনে যুবলীগের কেন্দ্রীয় নেতা জি কে শামিম এর ব্যবসায়িক কার্যালয় জি কে বিল্ডার্সে অভিযান চালিয়েছে র‍্যাব। এ সময় জি কে শামীম এর ৬ দেহরক্ষীসহ তাকে আটক করা হয়। গ্রেফতার হওয়া ঠিকাদার এসএম গোলাম কিবরিয়া শামীমের (জি কে শামীম) জি কে বি অ্যান্ড কোম্পানি প্রাইভেট লিমিটেডের জব্দ ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলে দেওয়ার আবেদন খারিজ (উত্থাপতি হয়নি মর্মে) করে দিয়েছেন হাইকোর্ট। এর ফলে তার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট জব্দই থাকছে বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

সোমবার (৪ নভেম্বর) বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি মো. মাহমুদ হাসান তালুকদারের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে শামীমের আবেদনের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী অজি উল্লাহ। অন্যদিকে, রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা ও ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিপুল বাগমার।

এর আগে দুর্নীতিবিরোধী অভিযানে গত ২০ সেপ্টেম্বর জিকে শামীমকে গ্রেফতার করে র‍্যাব। শামীমের গুলশানের অফিসে অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ অর্থ, বিদেশি মুদ্রা, এফডিআর, অস্ত্রসহ তাকে গ্রেফতার করা হয়। একই সঙ্গে তার দেহরক্ষীদেরও গ্রেফতার দেখানো হয়।

পরে গত ২১ অক্টোবর শামীমের বিরুদ্ধে ২৯৭ কোটি ৯ লাখ টাকার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে মামলা দায়ের করেন দুদকের উপপরিচালক মো. সালাউদ্দিন। এদিকে তার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জি কে বি অ্যান্ড কোম্পানি প্রাইভেট লিমিটেডের অ্যাকাউন্টের লেনদেন স্থগিত করে বাংলাদেশ ব্যাংক।