জম্বু-কাশ্মীরের শিশুদের সাহায্য করতে জাতিসংঘের প্রতি মালালার আহ্বান

বিশেষ অধিকার বাতিল হওয়ার ফলে অবরুদ্ধ জম্বু-কাশ্মীরের শিশুদের সাহায্য করতে জাতিসংঘের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন নোবেল বিজয়ী মানবাধিকার কর্মী মালালা ইউসুফজাই।

পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যম ডনের প্রতিবেদনে বলা হয়, গতকাল শনিবার মালালা এক টুইট বার্তায় জাতিসংঘের প্রতি এ আহ্বান জানান।  তিনি জাতিসংঘের আসন্ন সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে বিষয়টির আলোচনার জন্য বিশ্ব নেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।

কাশ্মীরের বিশেষ অধিকার বাতিলের পর থেকেই অনেক শিশুই স্কুলে যেতে পারছে না। প্রথমে স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকলেও পরে খুলে দেওয়া হলেও অনেকে ভয়ে স্কুলে যাচ্ছে না।

জাতিসংঘ ও বিশ্ব নেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে মালালা বলেন, ‘এসব শিশুদের নিরাপদে তাদের স্কুলে ফিরে যেতে সহায়তা করুন।’

নারী অধিকার রক্ষা করতে গিয়ে সন্ত্রাসীদের হামলার শিকার মালালা বেশ কয়েকটি টুইট বার্তায় বলেন, ‘শিশুসহ প্রায় চার হাজার মানুষ জোরপূর্বক আটক ও দণ্ড দেওয়া হয়েছে, শিক্ষার্থীরা গত ৪০ দিন ধরে স্কুলে যেতে পারছে না, মেয়ে ঘরছাড়া হওয়ার ভয়ে ভীত। এমন খবর শুনে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।’

বিশ্ব নেতাদের উদ্দেশে মালালা বলেন, ‘আমি জাতিসংঘ সাধারণ অধিবেশনে যোগদানকারী ছাড়াও অন্য নেতাদের আহ্বান জানাচ্ছি, আপনারা কাশ্মীরিদের দাবি শুনুন, সেখানে শান্তি ফিরিয়ে আনতে কাজ করুন। শিশুরা যেন নিরাপদে স্কুলে ফিরতে পারে সেই সহায়তা করুন।’

গত সপ্তাহে তিন কাশ্মীরি তরুণীর সঙ্গে কথা বলেন মালালা। ওই তরুণীদের কথা জানিয়ে তিনি লিখেন,‘কাশ্মীরের বর্তমান পরিস্থিতির বর্ণনার সবচেয়ে মোক্ষম শব্দ হলো ‘‘নীরাবতা’’। আমাদের সঙ্গে কী হচ্ছে এটাও জানার কোনো উপায় আমাদের হাতে নেই। আমরা সবাই শুধু জানালার বাইরে সৈন্যদের বুটের আওয়াজ শুনতে পাচ্ছি। পুরোটাই ভীতিকর।’