অবশেষে সৌদির কনসার্টে অংশ নিচ্ছেন না বলে জানিয়েছেন নিকি মিনাজ

ব্যাপক আলোচনা সমালোচনার মুখে অবশেষে সৌদি আরবে কনসার্টে অংশ নিচ্ছেন না বলে জানিয়েছেন মার্কিন র‍্যাপ তারকা নিকি মিনাজ। ওই কনসার্ট থেকে নিজেকে সরিয়ে নেয়ার কারণ হিসেবে নিকি মিনাজ বলেন, তিনি নারীদের অধিকার, সমকামী অধিকার এবং মত প্রকাশের স্বাধীনতাকে সমর্থন প্রদর্শন করতে চান।

বার্তা সংস্থা এএফপি’কে পাঠানো এক বিবৃতিতে নিকি মিনাজ বলেন, আমি সিধান্ত নিয়েছি জেদ্দায় ওয়ার্ল্ড ফেস্টে আমার নির্ধারিত কনসার্টে অংশ নিচ্ছি না।

আগামী ১৮ জুলাই জেদ্দায় এ কনসার্টের আয়োজন করা হচ্ছে বলে খবরে বলা হয়। ওই কনসার্টে নিকি মিনাজ পারফর্ম করবেন এমন ঘোষণার পর সৌদিসহ বিশ্বব্যাপী ব্যাপক আলোচনা সমালোচনা শুরু হয়।

অনেকেই প্রশ্ন তুলেন নিকি মিনাজের পোশাক এবং খোলামেলা গানের বক্তব্য রক্ষণশীল রাজতন্ত্রের দেশটির সঙ্গে ঠিক খাপ খায় না।

কেউ বলেছেন, মহানবী হজরত মোহাম্মাদ (স.)’র জন্মভূমিতে নিকি মিনাজের মতো শিল্পীর আগমন ও কনসার্ট কোনোভাবেই মেনে নেওয়া যায় না। হজের মৌসুমে সৌদি আরবে এমন কনসার্টের বিষয়ে দেশটির অনেক নাগরিকই অসন্তুষ্ট।

টুইটারে একটি ভিডিওতে মাথায় হিজাব পড়া একজন নারী প্রশ্ন তুলেন, কেন এই সংগীতশিল্পীকে আমন্ত্রণ জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ, যখন সৌদি নারীদের বোরকা পড়া বাধ্যতামূলক।

ওই নারী বলেন, ‘তিনি তার নিতম্বর ঝাঁকিয়ে গান গাইবেন আর গার সব গানই যেখানে যৌনতা ঘিরে, আর এরপর আপনি আমাকে বোরকা পড়তে বলবেন, সেটা কিভাবে হয়?’

দেশটির বিনোদন বিভাগের প্রধান, তুর্কি আল-শেখ জানুয়ারিতে একটি টুইট করে তাদের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যের কথা জানিয়েছেন।

সেখানে তিনি বলেন, ‘আল্লাহ চাইলে, পরবর্তী ধাপের বিনোদনের মূল লক্ষ্য হবে নানা উৎসব, সার্কাস, মোবাইল থিম পার্ক, তরুণ-তরুণীদের বিনোদনের জন্য নানা কর্মসূচী নেয়া আর দেশীয় বিনোদন কোম্পানিগুলোকে সহায়তা করা।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here