কনডম ছাড়াই জোরপূর্বক যৌন সম্পর্ক করে নেইমার

শুক্রবার ব্রাজিলের টিভি চ্যানেল এসবিটিতে লাইভে আসেন নেইমারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ আনা নাজিলা ট্রিনডেড। তিনি প্যারিসের হোটেল কক্ষে ঘরে যাওয়ার ঘটনার বর্ণনা দেন। 

তিনি বলেন, ‘হোটেল কক্ষে আমি নেইমারের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করতে রাজি ছিলাম। তাকে কনডম ব্যবহার করতে বলি। কিন্তু সে কনডম ছাড়াই জোরপূর্বক যৌন সম্পর্ক করে। বারবার বারণ করলেও নেইমার থামেনি।’ এসবিটি নাজিলার সাক্ষাতকারের চুম্বক অংশ ও প্যারিস হোটেল কক্ষের একটি ভিডিও টুইটারে প্রকাশ করেছে।

নাজিলা জানান, ১৫ই মে প্যারিসে তিনি হোটেল রুম ভাড়া নিয়েছিলেন নেইমারের টাকাতেই। হোয়াটসঅ্যাপে ব্রাজিলিয়ান ফুটবল তারকার সঙ্গে তার চ্যাটিংয়ের যে স্ক্রিনশট দেখানো হয়েছে তাও সত্যি। নাজিলা দাবি করেন, সেদিন হোটেল রুমে নেইমারের কাছাকাছি আসার পর ভিন্ন স্বভাবের একজনকে দেখতে পান তিনি। নেইমারের আচরণ স্বাভাবিক ছিলো না। তিনি মাতাল এবং উদ্ধত্য আচরণ দেখাচ্ছিলেন।

প্যারিস হোটেল কক্ষের ওই ভিডিওতে দেখা গেছে, হোটেল কক্ষে নেইমারের সঙ্গে নাজিলার কোনো বিষয়ে তর্ক হচ্ছে। নাজিলা নেইমারকে চড় মারছেন আর বলছেন, ‘তুমি আমাকে গতকাল কামড়ে দিয়েছিলে।’ এরপর নেইমারও তার ওপর চড়াও হয়। নাজিলার এই কথায় প্রমাণিত হয়, এটা তাদের প্রথম সাক্ষাৎ নয়। আর নেইমারও স্বীকার করে নিয়েছেন, আরো একবার মিলিত হয়েছিলেন তারা। তবে নাজিলার টিভি লাইভ সাক্ষাতকারের ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করেননি তিনি।

এদিকে, নেইমারের বাবার দাবি- ছেলেকে ফাঁসানোর জন্যই পূর্ব-পরিকল্পনা করে এই ফুটেজ বানানো হয়েছে।  এর আগে নেইমার ইনস্টাগ্রামে ৭ মিনিটের একটি ভিডিওতে নাজিলার সঙ্গে তার বেশকিছু চ্যাটিং ও অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ছবি দেখান। নেইমার বলেন যে, প্রেমিক-প্রেমিকার সম্পর্কে যা হয় ওই ঘটনা তেমনটি একটি তুচ্ছ বিষয়। নাজিলাকে তিনি দীর্ঘদিন ধরে চেনেন। এমনকি তারা বাচ্চা নেয়ারও পরিকল্পনা করছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here