শ্বশুরবাড়ির ছোড়া গরম তেলে এক গৃহবধূসহ চারজন দগ্ধ

রাজধানী ঢাকার অদূরে কেরানীগঞ্জ উপজেলার পারহাউজ এলাকায় শ্বশুরবাড়ির ছোড়া গরম তেলে এক গৃহবধূসহ চারজন দগ্ধ হয়েছেন। আহতরা হচ্ছেন, গৃহবধূ শানুর আকতার (২২), প্রতিবেশী আরমান (২১), তুহিন (২৩) ও মেহেদী (১৬)। বর্তমানে তাঁরা ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন আছেন।

দগ্ধ শানুর বাবা শফুর উদ্দিন বলেন, ছয় মাস আগে প্রতিবেশী অলির সঙ্গে তার মেয়ে শানু আক্তারের বিয়ে হয়। বিয়ের পর প্রায়ই অলি আমার মেয়েকে মারধর করত। পরে জানতে পারি অলি মাদকাসক্ত।

তিনি বলেন, বৃহস্পতিবার দুপুরেও অলি মারধর করলে শানু রাগ করে আমাদের বাড়িতে চলে আসে। পরে রাতে শানুর প্রতিবেশী আরমান, তুহিন ও মেহেদী সঙ্গে নিয়ে ফের ওই বাসায় গিয়ে ঝগড়ার কারণ জানতে চায়।

একপর্যায়ে অলির বড় বোন লিপি তার বাসার চুলার ওপর থাকা গরম তেল তাদের ওপরে নিক্ষেপ করেন। এতে শানুসহ চারজন দগ্ধ হয় বলে তিনি জানান।

ঢামেক বার্ন ইউনিট সূত্রে জানা গেছে, শানুর শরীরে ৬ শতাংশ, আরমানের ৬, মেহেদীর ৭ ও তুহিনের ১২ শতাংশ ঝলসে গেছে।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ (ইন্সপেক্টর) বাচ্চু মিয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।