ভারতীয় মিডিয়া সামান্য ঘটনাকে উষ্কে দিতে মাহিরঃ অভিনন্দন

পাকিস্তানের কারাগারে আটক ভারতীয় পাইলট উইং কমান্ডার অভিনন্দন আজ সন্ধ্যায় নিজ দেশে ফিরছেন।  ৬০ ঘণ্টা বন্দি থাকার পর ভারতে ফিরলেন পাইলট অভিনন্দন। দেশে ফিরে তার প্রথম কথা ছিল, নিজ দেশে ফিরতে পেরে ভালো লেগেছে। প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান প্রতিশ্রুতি পূরণে ভারতীয় বিমান বাহিনীর পাইলট অভিনন্দন বর্তমানকে ভারতের কর্মকর্তাদের কাছে হস্তান্তর করেছে পাকিস্তান।

শুক্রবার (১ মার্চ) সাড়ে নয়টা নাগাদ ভারতের মাটিতে পা রাখেন অভিনন্দন বর্তমান। এদিকে মুক্তির আগে এক ভিডিও বার্তায় অভিনন্দন পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর প্রশংসা করেন তিনি এবং ভারতীয় মিডিয়ার সমালোচনা করেন।

ভারতীয় মিডিয়া সম্পর্কে অভিনন্দন বলেন, মিডিয়া সামান্য ঘটনাকে উষ্কে দিতে মাহির এবং তিল কে তাল বানায় এবং সাধারন জনগনকে বোকা বানায়

যদিও ভারতীয় সংবাদ্মাধ্যম জি নিউজের দাবি, প্রোপাগান্ডা ছড়াতে ভারতীয় পাইলটকে দিয়ে জোরপূর্বক ভিডিও স্বীকারোক্তি নিয়েছে পাকিস্তান সরকার।

ভারতের দাবি পাকিস্তানে শাসক বদলালেও আগের মতোই রয়ে গিয়েছে তারা। অভিনন্দন বর্তমানের মুক্তির ঠিক আগে ভিডিও শ্যুট করে তারা।

আরো দাবি করে জি নিউজ প্রকাশ করে, জেনেভা চুক্তি ভেঙে অভিনন্দনকে জোর করে ভিডিও শ্যুট করা হয়েছে। আর ১ মিনিট ৩০ সেকেন্ডের ভিডিয়োয় রয়েছে অন্তত ১৫টি কাট। আর এতেই স্পষ্ট, রীতিমতো পাখি পড়ানোর মতো অভিনন্দনের মুখ দিয়ে যা ইচ্ছে তা-ই বলিয়েছে ইমরানের পাকিস্তান।

আর ওই ভিডিয়োয় উইং কমান্ডারকে দিয়ে বলানো হয়েছে, পাকিস্তানিরা কত ভাল, খাতির-যত্ন করে ইত্যাদি। এমনকি ভারতীয় মিডিয়ার সমালোচনাও করানো হয়েছে ভারতীয় পাইলটকে দিয়ে।

চাপে পড়ে ভারতীয় পাইলটকে মুক্তি দেওয়ার পর নিজেকে শান্তির মসিহা বলে প্রচার করেছিলেন ইমরান খান। কিন্তু কূলভূষণ যাদবের মতোই অভিনন্দনকে দিয়েও ভিডিও শ্যুট করিয়ে নিজেই নিজের মুখোশ খুলে দিলেন ইমরান। ভারতীয়রা কটাক্ষ করে বলছেন, এবার থেকে এডিটিংয়ের ভাল সফটওয়্যার ব্যবহার করুন ইমরান খান।

প্রসঙ্গত, বুধবার পাক অধিকৃত কাশ্মীরের আকাশে ভারতীয় যুদ্ধবিমান নিয়ে অনুপ্রবেশ করেছিলেন এই পাইলট। পাকিস্তানে সেনাবাহিনীর গুলিতে ভূপাতিত হয় ভারতীয় যুদ্ধবিমান মিগ-২১। ওই যুদ্ধবিমানের ভেতর থেকে পাইলট অভিনন্দনকে বের করে আনেন উত্তেজিত কাশ্মীরিরা। পরে তাকে উদ্ধার করে নিজেদের জিম্মায় নেয় পাকিস্তান সেনাবাহিনী। এ নিয়ে দুই দেশের চরম উত্তেজনার মাঝে বৃহস্পতিবার পাকিস্তানের পার্লামেন্টে আয়োজিত যৌথ অধিবেশনে আটক ভারতীয় পাইলটকে শুক্রবার মুক্তি দেয়ার ঘোষণা দেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।