কালবৈশাখী ঝড়ে লণ্ডভণ্ড নোয়াখালীর নিঝুম দ্বীপ, ২০ জেলে নিখোঁজ

সোমবার সকাল ৮টা থেকে ৯টা পর্যন্ত নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার নিঝুম দ্বীপে প্রলয়ঙ্কারি কালবৈশাখী ঝড় হয়।ঝড়ে কাঁচা-পাকা ঘর এবং বিভিন্ন গ্রাম লণ্ডভণ্ড হয়ে গেছে। অর্ধশতাধিক বাড়িঘর বিধ্বস্ত হয়েছে। এ সময় মেঘনা নদীতে ২০ জেলেসহ পাঁচটি মাছ ধরা নৌকা নিখোঁজ হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে নিঝুম দ্বীপ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মেহরাজ উদ্দিন বলেন, এক ঘণ্টার ঝড়ে দ্বীপের তিন শতাধিক কাঁচা-পাকা ঘর বিধ্বস্ত ও বিভিন্ন স্থানে খোলা মাঠে শুকাতে দেয়া অন্তত ২০ হাজার মণ শুঁটকি নষ্ট হয়ে যায়। এ সময় নদীতে মাছ ধরা অবস্থায় ২০ জেলেসহ পাঁচটি নৌকা নিখোঁজ হয়। এখনো তাদের খোঁজ পাওয়া যায়নি।

এদিকে, হাতিয়ার তমরদ্দিঘাট থেকে চেয়ারম্যান ঘাটে আসার পথে ধানবোঝাই একটি ট্রলার মেঘনা নদীতে ডুবে যায়। এই ট্রলারে ১০০ বস্তা ধান ছিল।

হাতিয়া উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নূর এ আলম বলেন, কালবৈশাখী ঝড়ে নিখোঁজ জেলেদের উদ্ধারের বিষয়ে কাজ করা হচ্ছে। ক্ষয়ক্ষতির হিসাব নিরূপণ করা হচ্ছে। ক্ষতিগ্রস্তদের সরকারিভাবে সহায়তা দেয়ার বিষয়ে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে। সাগরে নিম্নচাপের প্রভাবে এই কালবৈশাখী ঝড় হয়েছে।