দিনাজপুরে জন্ম হলো তিন মাথাওয়ালা এক অদ্ভূদ শিশুর!

দিনাজপুরে তিন মাথা বিশিষ্ট এক কন্যা শিশুর জন্ম হয়েছে। সোমবার দুপুরে দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অপারেশনের মাধ্যমে শিশুটির জন্ম হয়। পার্বতীপুর উপজেলার গোলপাড়া গ্রামের রিয়াজুল ইসলাম ও জয়নব বানু দম্পত্তির ঘরে এই অদ্ভূদ কন্যা শিশুটি জন্ম নেয়।

নবজাতক শিশুটির বাবা রিয়াজুল জানান, রোববার বিকালে তার স্ত্রীর প্রসব ব্যাথা উঠলে প্রথমে স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানকার দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। পরে তারা সেখান থেকে এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসে। পরদিন সোমবার দুপুরে শিশু বিশেষজ্ঞ ও বিভাগীয় প্রধান ডা. ওয়াহেদ আলীর তত্ত্বাবধানে অপারেশনের মাধ্যমে শিশুটির জন্ম হয়। শিশুটির ওজন প্রায় পৌনে চার কেজি। তাদের ঘরে একটি আট বছরের পুত্র সন্তার রয়েছে। নবজাতকের বাবা পেশায় একজন দর্জি।

সোমবার রাতে শিশু বিভাগের কর্মরত চিকিৎসক ডা. তাসমিনা আফরিন জানান, শিশুটির জন্মকালিন ত্রুটির কারনে এমনটি হয়েছে। তাই তিনটি মাথার মত মনে হচ্ছে। চোখসহ দেহের বেশ কিছু অঙ্গ পরিপক্ক হয়নি। ফলে শিশুটিকে নিবিড় পর্যবেক্ষনে অক্সিজেন দিয়ে রাখা হয়েছে। এমন শিশুর বেচেঁ থাকার সম্ভাবনা খুবই কম থাকে। তারপরেও শিশুটিকে বাঁচায়ে রাখতে সাধ্যমত চেষ্ঠা করা হচ্ছে।

এদিকে বাচ্চাটিকে এক নজর দেখেতে হাসপাতালে অনেকেই ভীড় করছে।

 

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর প্রতিনিধি