ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ হত্যা, ৩ গৃহকর্মীর নামে মামলা

ইডেন মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মাহফুজা চৌধুরী পারভীনকে (৬৬) তার বাসায় শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়। গতকাল রবিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে নিউমার্কেট এলাকার সুকন্যা টাওয়ারের ১৬ সি ফ্ল্যাট থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। ঘটনার পর আলমারিতে থাকা স্বর্ণালঙ্কার, ব্যবহৃত মোবাইল ফোন পাওয়া যাচ্ছে না। ধারণা করা হচ্ছে, পলাতক গৃহপরিচারিকারা স্বর্ণালঙ্কার চুরির জন্যই এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

রাজধানীর ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মাহফুজা চৌধুরী পারভীন হত্যার ঘটনায় নিউ মার্কেট থানায় তিন গৃহকর্মী স্বপ্না, রেশমা, রুনুসহ অজ্ঞাতপরিচয় আরও কয়েকজনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছে।

শ্বাসরোধ করে ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মাহফুজা চৌধুরী পারভীনকে হত্যা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ। সোমবার  ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে মাহফুজা চৌধুরীর ময়নাতদন্ত সম্পন্ন করা হয়। তিনি বলেন, ‘দুই বা ততোধিক ব্যক্তি এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।’

ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মাহফুজা চৌধুরী পারভীন হত্যার বিষয়ে জানতে মহানগর পুলিশের (ডিএমপির) রমনা বিভাগের উপকমিশনার মারুফ হোসেন সরদারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, ঘটনার পর থেকে বাসা থেকে পলাতক দুই গৃহকর্মীকে খুঁজছে পুলিশ। পলাতক দুই গৃহকর্মীর মধ্যে স্বপ্নার বয়স আনুমানিক ৩৬, রেশমার আনুমানিক ৩০ বছর। স্বপ্নার বাড়ি ফরিদপুরের বোয়ালমারী ও রেশমার কিশোরগঞ্জে।

তিনি আরও বলেন, তাদের ধরার জন্য বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চালিয়েছি। গতকাল সারারাতই অভিযান চলে। আশা করছি, দ্রুত তাদের আটক করা সম্ভব হবে।

এবিষয়ে নিউমার্কেট থানা উপ-পুলিশ পরিদর্শক স্বপন কান্তি দের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এই ঘটনা আমরা তদন্ত করে দেখছি। তদন্তের পর বিস্তারিত প্রকাশ করা যাবে। তবে এখন পর্যন্ত কাউকে আটক করা হয়নি।

উল্লেখ্য, মাহফুজা চৌধুরী পারভীন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাধারণ সম্পাদক ইসমত কাদির গামার স্ত্রী। সুকন্যা টাওয়ারের ওই ডুপ্লেক্স ফ্ল্যাটে তারা স্বামী-স্ত্রী বসবাস করতেন। তাদের বড় ছেলে সেনা কর্মকর্তা ও ছোট ছেলে ব্যাংকার।