যুক্তরাজ্যে ইতিহাস গড়লেন বঙ্গবন্ধুর নাতনি টিউলিপ

বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত দেশটির লেবার পার্টির এমপি টিউলিপ সিদ্দিক মাতৃত্বকালীন ছুটিতে থাকা অবস্থায় যুক্তরাজ্যের পার্লামেন্টে প্রথম প্রক্সি ভোট (প্রতিনিধির মাধ্যমে ভোট) দিয়ে ইতিহাস গড়লেন। ব্রেক্সিট নিয়ে প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মের আনা সংশোধনীর প্রশ্নে গত মঙ্গলবার ব্রিটিশ পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ হাউস অব কমন্সে এ ভোট অনুষ্ঠিত হয়।

ইভিনিং স্ট্যান্ডার্ড এক খবরে জানায়, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বোনের মেয়ে টিউলিপ সিদ্দিক নিজ দল লেবার পার্টির এমপি ভিকি ফক্সক্রফটকে তার পক্ষে সংসদীয় ভোট দেওয়ার জন্য মনোনীত করেন। পরে ব্রেক্সিটের ভবিষ্যৎ নির্ধারণে গুরুত্বপূর্ণ সাতটি সংশোধনীতে টিউলিপের হয়ে ভিকি ভোট দেন।

এর আগে গত ১৫ জানুয়ারি ব্রেক্সিট প্রশ্নে প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মের কিছু সংশোধনী প্রস্তাবের ওপর হাউস অব কমন্সে ভোটাভুটি অনুষ্ঠিত হয়। নিয়ম অনুযায়ী এতদিন এমপিদের সশরীরে উপস্থিত হয়েই এ সংসদীয় ভোট দিতে হতো। ফলে অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায়ও হুইল চেয়ারে বসে হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড কিলবার্ন আসন থেকে নির্বাচিত এমপি টিউলিপ পার্লামেন্টে হাজির হয়ে ভোট দেন, যা নিয়ে দেশটিতে আলোড়ন তৈরি হয়। শুধু ভোট দেওয়ার জন্যই চিকিৎসকদের সঙ্গে আলোচনা করে তিনি সন্তান প্রসবের দিনও পিছিয়ে দেন।

টিউলিপের এ সিদ্ধান্ত তখন বিশ্বজুড়ে তুমুল আলোচনার জন্ম দেয়। পরে অমানবিক এ বিধি পরিবর্তনে টিউলিপের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে হাউস অব কমন্সে বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় সদ্য বাবা-মা হওয়া এমপিদের ক্ষেত্রে পরীক্ষামূলকভাবে এক বছরের জন্য প্রক্সি ভোটিং চালুর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে।

এদিকে মঙ্গলবার প্রথম প্রক্সি ভোট দিয়ে টুইট করে নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করেছেন টিউলিপ। তিনি লেখেন, এ গুরুত্বপূর্ণ ভোটে আমার সংসদীয় আসন থেকে প্রতিনিধিত্ব করতে পারায় অনেক কৃতজ্ঞ। এতেই প্রমাণিত হয়, পরিবর্তনের জন্য আন্দোলন করলে তা আদায় করা যায়।

সম্প্রতি এক পুত্রসন্তানের মা হয়েছেন টিউলিপ। নবাগতের নাম রাখা হয়েছে রাফায়েল মুজিব সেন্ট জন পার্সি। প্রক্সি ভোটিংয়ের বিধান পরিবর্তনের সূত্রে রাফায়েলের নাম এরই মধ্যে ঢুকে গেছে হাউস অব কমন্সের নথিতে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here