ষষ্ঠ স্প্যান বসছে দেশের সবচেয়ে বড় মেগা প্রকল্প পদ্মা সেতুর

আজ (বুধবার) ষষ্ঠ স্প্যান বসছে দেশের সবচেয়ে বড় মেগা প্রকল্প পদ্মা সেতুর। এর ফলে নির্মীয়মান ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এই সেতুর ১ হাজার ৫০ মিটার দৃশ্যমান হবে। এর আগে ১৫ জানুয়ারি স্প্যানটি বসানোর কথা ছিল। কিন্তু পদ্মায় নাব্য সঙ্কটে তা পিছিয়ে দেয়া হয়। নদীতে ড্রেজিং করে গভীরতা বৃদ্ধি করে আজ স্প্যানটি নেয়া হচ্ছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, দেশের দীর্ঘতম পদ্মা সেতুর শরীয়তপুরের জাজিরা প্রান্তে ৩৬ ও ৬৭নং পিলারের ওপর এই স্প্যানটি বসানো হবে। এজন্য গতকাল মঙ্গলবার সকালে মুন্সীগঞ্জের কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে জাহাজে করে স্প্যানটি জাজিরা প্রান্তে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

২০১৭ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর ৩৭ ও ৩৮ নম্বর পিলারের ওপর প্রথম স্প্যান, ২০১৮ সালের ২৮ জানুয়ারি ৩৮ ও ৩৯ নম্বর পিলারের ওপর দ্বিতীয় স্প্যান, ১১ মার্চ ৩৯ ও ৪০ নম্বর পিলারের ওপর তৃতীয় স্প্যান, ১৩ মে ৪০ ও ৪১ নম্বর পিলারের ওপর চতুর্থ স্প্যান, গত বছরের ২৯ জুন ৪১ ও ৪২ নম্বর পিলারের ওপর পঞ্চম স্প্যান বসানো হয়েছে। এ স্প্যানগুলো বসানোর মধ্য দিয়ে পদ্মা সেতু অনেকটাই দৃশ্যমান হয়।

গত রোববার রাজধানীর বনানীতে সেতু ভবনে এক মতবিনিময় সভায় সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের জানান, সার্বিকভাবে পদ্মা সেতুর ৬৩ শতাংশ কাজ এবং মূল সেতুর ৭৩ শতাংশ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। সেতুর মোট ২৬১টি পাইলের মধ্যে ১৯১টির কাজ সম্পন্ন এবং আরও ১৫টি পাইলের আংশিক কাজ শেষ হয়েছে।