দৌলতপুরে মজুরী বৃদ্ধির দাবীতে বিড়ি শ্রমিকদের মানববন্ধন!

কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার হোসেনাবাদ আকিজ বিড়ি ফ্যাক্টরীর একদল শ্রমিক মজুরী বৃদ্ধির দাবী জানিয়ে মানববন্ধন করেছে। বুধবার বেলা ১২ টার দিকে হোসেনাবাদ বাজারে তারা এই মানববন্ধন করে। মানববন্ধনে অংশ নেয়া শ্রমিকরা অবিলম্বে মজুরী বৃদ্ধি করে ফ্যাক্টরী চালু করার দাবী জানিয়েছেন।

দৌলতপুরে মজুরী বৃদ্ধির দাবীতে বিড়ি শ্রমিকদের মানববন্ধন!

এদিকে আকিজ বিড়ি ফ্যাক্টরী কর্তৃপক্ষ জানায়, একদল শ্রমিক বিভিন্ন অপরাধ কর্মকান্ডে জড়িত থাকায় তাদের ফ্যাক্টরী থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। ঐ বহিস্কৃত শ্রমিকরা একটি স্বার্থান্বেষী মহলের মদদপুষ্ট হয়ে গত শনিবার জোর করে বিড়ি ফ্যাক্টরীতে প্রবেশ করে কর্মরত অবস্থায় সাধারণ শ্রমিকদের ভয়ভীতি প্রদর্শণ করে বিড়ি তৈরীর উপকরণসহ ফ্যাক্টরী থেকে বের করে নিয়ে যায়।

তবে, সাধারণ শ্রমিকরা ধার্যকৃত মজুরীতে কাজ করতে চাইলেও বহিস্কৃত শ্রমিকদের হুমকিতে তারা কাজ করতে পারছেন না বলে তারা জানিয়েছেন। তারা আরো জানিয়েছে ফ্যাক্টরীতে প্রায় ৩ হাজার শ্রমিক কাজ করলেও মানববন্ধনে শতাধিক শ্রমিক অংশ নেয়।

ফ্যাক্টরী ম্যানেজার ওয়াহিদুজ্জামান জানান, সরকার ধার্যকৃত মজুরী প্রতি হাজারে ৩১ টাকা ৫০ পয়সা। অথচ বিড়ি শ্রমিক স্বার্থ বিবেচনা করে তাদের প্রতি হাজারে ৩৯ টাকা দেয়া হচ্ছে। কিন্তু একটি কুচক্রী মহলের প্ররোচনায় বহিস্কৃত শ্রমিকরা প্রতি হাজারে ৬০ টাকা দাবী করে আসছে। যা বিড়ি ফ্যাক্টরীটি ধ্বংস করার শামিল। বহিস্কৃত ঐ শ্রমিকরা বিভিন্নভাবে বিড়ি ফ্যাক্টরীর কর্মকর্তা কর্মচারীদের হুমকি দিচ্ছে বলে তিনি জানিয়েছেন। এব্যাপারে ফ্যাক্টরী কর্তৃপক্ষ দৌলতপুর থানায় অভিযোগ করেছেন।

দৌলতপুর থানার ওসি শাহ দারা খান জানান, একদল বহিস্কৃত শ্রমিক ফ্যাক্টরীটির পরিস্থিতি ঘোলাটে করার চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ পেয়েছি। কোন ধরণের বিশৃংখলা হতে দেয়া হবেনা বলে তিনি জানিয়েছেন।

জহুরুল হক, কুষ্টিয়া প্রতিনিধি