আবারো বন্ধ হলো বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র

দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির কয়লা কেলেঙ্কারীর ঘটনার পর গত ২২জুলাই কয়লার অভাবে বন্ধ হয়ে যায় দেশের একমাত্র তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি। বড়পুকুরিয়ার কয়লা খনির নতুন ফেসের কয়লা উত্তোলন শুরু না হলেও রাস্তা তৈরীর জন্য অল্প অল্প করে পাওয়া কয়লার মজুত দিয়ে কয়লা ভিত্তিক তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি গত ২০ আগস্ট চালু করা হয় একটি ইউনিট।

মজুত থাকা প্রায় ৬হাজার মেট্রিক টন কয়লা দিয়ে বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ২য় ইউনিটটি ৮দিন চালু রাখা সম্ভব হয়। তবে আজ মঙ্গলবার ৩টা ৫মিনিটে কয়লা স্টকে না থাকার কারনে বন্ধ করে দেয়া হয় ইউনিটটি। ঘটনাটি মুঠো ফোনে নিশ্চিত করেন বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান প্রকৌশলী আব্দুল হাকিম সরকার। তিনি আরো জানান, ঈদুল আযহার নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুতের চাহিদা মেটাতে বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দের একটি ইউনিট চালু রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছিল। তবে স্টকে যতটুকু কয়লা ছিল তা দিয়ে আজ দুপুর পর্যন্ত ইউনিটটি চালু রাখা সম্ভব হয়।

এদিকে রংপুর বিভাগে আটটি জেলায় ৬৫০ মেগাওয়াট বিদ্যুতের চাহিদা থাকলেও জাতীয় গ্রিড থেকে সরবরাহ পাওয়া যায় ৫শ থেকে ৫শ পঞ্চাশ মেগাওয়ার্ড। প্রায় দেড়শো মেগাওয়ার্ড ঘাটতির কারনে লোড লোডশেডিংয়ের পাশাপাশি লো-ভোল্টেজের দেখা দিতে পারে।

 

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর প্রতিনিধি