আন্দোলনে ফুটে উঠেছে মাদার অফ হিউমেনিটির উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত

রাজধানীর বিমান বন্দর সড়কের কুর্মিটোলা এলাকায় জাবালে নূর বাসের চাপায় শহীদ রমিজ উদ্দিন কলেজের দুই শিক্ষার্থী নিহতের ঘটনা ঘটে। আহত অবস্থায় হাসপাতালে নিলে মৃত্যু বরন করে আরও তিন শিক্ষার্থী। নিরাপদ সড়ক ও ঘাতক চালকদের দ্রুত বিচার ও ফাঁসির দাবিতে অবরোধ করেছে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। তাদেরকে সমর্থনে রাস্তায় নেমে এসেছে অভিভাবকরাও।

সকাল থেকে রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে জড়ো হয়ে ‘উই ওয়ান্ট জাস্টিস’ স্লোগান দিচ্ছে শিক্ষার্থীরা। তারা বলছেন, দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত ঘরে ফিরে যাবেন না। তাদের এই আন্দোলনকে বাঁধা না দিয়ে তাদের সমর্থন করতে রাস্তায় নেমে এসে দৃষ্টান্ত উপস্থাপন করেছেন কিছু আন্দোলন কারী শিক্ষার্থীদের অভিবাবকরা।

 

খাবার রান্না করে এনে নিজের সন্তানের মত সকলকে মুখে তুলে খাইয়ে দিচ্ছেন মা রা। বাবা রা সন্তানদের জন্য পানি কিনে এনে দিচ্ছেন। তাড়াও চান তাদের সন্তানরা নিরাপদ সড়কে চলাচল করুক। সড়ক দুর্ঘটনায় যেন আর কোনও কমলমতি শিশু প্রাণ না হারায়।

উল্লেখ্য, গত রোববার (২৯ জুলাই) দুপুরে রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কের কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের সামনে এমইএস বাস স্ট্যান্ডে জাবালে নূর পরিবহনের বাসচাপায় দুই শিক্ষার্থী নিহত হন।

একই ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও ১০/১৫ জন শিক্ষার্থী। আহত অবস্থায় হাসপাতালে নিলে মৃত্যু বরন করে আরও তিন শিক্ষার্থী।