রাত ৮টার পর শিক্ষার্থীদের রাস্তায় চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা!

আদর্শ পিতামাতার সন্তান জঙ্গিবাদ হতে পারে না। পিতা মাতা উভয়কে সন্তানের প্রতি দায়িত্বশীল হতে হবে। সন্তানের প্রতি পিতা মাতার ব্যবহার ভাল করতে হবে। শিক্ষার বিকল্প নাই। ছেলে মেয়েদের উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত করতে হবে। বাংলাদেশ উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। আমাদের মাথা পিছু আয় বেড়েছে। জাতিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে যোগ্য নেতৃত্ব দরকার।

গতকাল শুক্রবার বিকাল ৫টায় সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত উপজেলা পরিষদ চত্তরে ২০১৮ সালের এসএসসি,দাখিল পরীক্ষায় জিপিএ ৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা ও জঙ্গিবাদ,মাদক,ইভটিজিং এবং বাল্যবিবাহ বিরোধি অভিভাবক ও শিক্ষার্থী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে খুলনা বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া এ সব কথা বলছিলেন।

তিনি বলেন মাদক ভাল নয়। মাদককে পরিহার করতে হবে।মাদকাসক্ত ব্যাক্তির সমাজে কোন ঠাঁই নাই। মাদক সেবনকারীকে সকলে ঘৃনা করতে হবে। তিনি মাদকের বিরুদ্ধে সকলকে আন্দোলন করা এবং মাদকমুক্ত সমাজ গড়ার আহব্বান জানান। প্রধান অতিথি বক্তব্যে বলেন রাত ৮টার পর স্কুল, কলেজ পড়–য়া ছেলে মেয়েরা রাস্তায় থাকতে পারবে না। তিনি এ ব্যাপারে জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী অফিসার সহ পুলিশ প্রশাসনের নির্দেশনা প্রদান করেন। এ ছাড়া প্রধান অতিথি বক্তব্যে বাল্য বিবাহের কুফল, সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন মুলক কর্মকান্ড তুলে ধরেন। প্রধান অতিথি শ্যামনগরে বিভিন্ন উন্নয়ন মুলক কর্মকান্ডের উদ্বোধন করেন। দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বাই সাইকেল বিতরণ, সমবায়ীদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ, বজ্রপাতে নিহত পরিবারের মাঝে চেক বিতরণ, মৎস্য সম্প্রসারণ কমীদের মধ্যে মাটি ও পানি পরীক্ষার উপকরণ বিতরণ, উপজেলা পরিষদের আপন ছোঁয়া বিশ্রামাগারের উদ্বোধন, দূরদর্শনের উদ্বোধন, শ্যামনগর ভূমি অফিসের ৯টি প্রকল্পের উদ্বোধন সহ অন্যান্য উন্নয়ন কর্মকান্ডের উদ্বোধন করেন।

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ ইফতেখার হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন শ্যামনগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ কামরুজজামান। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ভারপ্রাপ্ত উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম মহসীন উল মুলক, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আবুল কালাম রফিকুজ্জামান, শ্যামনগর সদর ইউপি চেয়ারম্যান ও পিপি এ্যাড.জহুরুল হায়দার বাবু, শ্যামনগর থানার অফিসার ইনচার্জ ইলিয়াস হোসেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার দেবী রঞ্জন মন্ডল প্রমুখ। অনুষ্ঠানে উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি সুজন সরকার, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নুরজাহান পারভীন ঝর্ণা, সরকারী কর্মকর্তাবৃন্দ, ইউপি চেয়ারম্যানবৃন্দ, সাংবাদিকবৃন্দ, মুক্তিযোদ্ধাবৃন্দ, শিক্ষকবৃন্দ, অভিভাবকবৃন্দ প্রমুখ পেশাজীবিরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথি অনুষ্ঠান শেষে সরকারী কর্মকর্তা, ইউপি চেয়ারম্যানবৃন্দ ও সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেন। তিনি অফিসার্স ক্লাব, শ্যামনগর উপজেলা প্রেসক্লাব পরিদর্শন করেন। শ্যামনগর পেীরসভা, পানি উন্নয়ন বোর্ডের বেড়ী বাঁধ সংস্কার সহ অন্যান্য বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যানদের সাথে বিভাগীয় কমিশনার মত বিনিময় করেন।

বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া শ্যামনগর পেীঁছালে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানান সাতক্ষীরা-৪ আসনের এমপি এস এম জগলুল হায়দার, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ কামরুজজামান, ভারপ্রাপ্ত উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম মহসীন উল মুলক, শ্যামনগর থানার ওসি ইলিয়াস হোসেন প্রমুখ।

রনজিৎ বর্মন, শ্যামনগর (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি