হাবিপ্রবিতে ক্যারি অন পদ্ধতি চালুর দাবিতে মানববন্ধন

প্রচলিত শিক্ষা কার্যক্রম থেকে ড্রপ আউট পদ্ধতি বাতিল করে ক্যারি অন পদ্ধতি চালুর দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করে দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (হাবিপ্রবি)’র শিক্ষার্থীরা।

আজ সোমবার দুপুর সাড়ে ১২ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়নরত সকল অনুষদের সাধারন ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ’র ব্যানারে ঘন্টাব্যাপী এই মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়।

মানববন্ধন কর্মসূচী চলাকালে জানানো হয়, অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা দূর্ঘটনা বা অসুস্থ্যতাজনিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে না পারলে বা ৩ এর অধিক বিষয়ে অকৃতকার্য হলেও তাকে পরবর্তী সেমিষ্টারে উত্তীর্ণ করে অকৃতকার্য বিষয়সমূহ শর্ট সেমিষ্টারে অংশগ্রহন করে পুরন করা সুযোগ রয়েছে। কিন্ত হাজী দানেশ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের এই সুযোগ প্রদান করা হচ্ছে না। এছাড়াও শর্ট সেমিষ্টার বা মান্নোয়নের জন্য একজন শিক্ষার্থী নির্দিষ্ট ফি প্রদান করে ইমপ্রুভ দিতে পারবে এবং সে যত মার্ক অর্জন করবে তাকে তা দেয়া হয়। অথচ এই সুযোগটিও এখানে প্রদান করা হচ্ছে না। তাই ক্যারি অন পদ্ধতি চালুর দাবিতে তারা আন্দোলন করছেন। এসময় ফাইনাল পরীক্ষা সমাপ্তির অনধিক এক মাসের মধ্যে ফলাফল প্রকাশ করে সেশন জট নিরসনের কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহনেরও দাবি জানানো হয়। এর আগে তারা দাবি পুরনের লক্ষ্যে রেজিষ্ট্রার বরাবরে একটি স্মারকলিপি প্রদান করে।

এদিকে পোষ্ট গ্র্যাজুয়েট অনুষদের পরিবর্তে এমবিএ ডিগ্রীটি বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের নিজ নিজ বিভাগ কর্তৃক প্রদান করা, এই বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত কলেজ এবং অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা রেগুলার এমবিএ করতে না দেয়া, বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সনদপত্র আর অধিভুক্ত কলেজের সনদপত্র একই না হওয়া এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের এমবিএ ভর্তির নীতিমালা সংস্কার করার দাবিতে মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচী পালন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের শিক্ষার্থীরা।

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর প্রতিনিধি