জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে গৃহবধূকে মারধর

জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে পটুয়াখালীর বাউফলের গৌরী দাস (৩৫) নামে গৃহবধূকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করেছে প্রতিপক্ষ। এ সময় আহত অবস্থায় তাকে অবরুদ্ধ রাখা হয় যাতে কোন প্রকার আইনি ও চিকিৎসা সেবা না নিতে পারে। পরে পুলিশ এসে ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

এ ঘটনায় গতকাল শনিবার (৫ মে) গৌরী রানী বাদি হয়ে ৫ জনকে আসামি করে বাউফল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন বলে জানা যায়।

জানা যায়,  গৌরী রানীর স্বামী অনিল মাতব্বর ২০১৫ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় শাহজাদা তালুকদারের থেকে জেএল ৪৩ এর ৮০৫ নং খতিয়ানের ৮০৫ নং দাগের সারে ১২ শতাংশ জমি কিনেন।গত শুক্রবার ওই জমিতে অনিল মাতব্বর মাটি কাটতে গেলে প্রতিপক্ষ কামিন উদ্দিন সিকদারের ছেলে সুলতান সিকদার (৪০) নাঈম সিকদার (৩০) ফোরকান সিকদার (৩৩) এবং চিত্তরঞ্জন দাসের ছেলে স্বজল দাস (৩৮) এবং নিশিকান্ত অধিকারির ছেলে দুলাল (৪০) বাধা দেয়। এসময় উভয়ের মধ্যে বাকবিতন্ডা শুরু হলে অনিল মাতব্বরকে মারতে এগিয়ে আসলে স্বামীকে বাচাঁতে এগিয়ে আসে স্ত্রী গৌরী রানী। পরে প্রতিপক্ষরা তাকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে এবং টানা-হ্যাচরা করে জমির বাহিরে ফেলে রাখে। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে তাকে বাড়িতে নিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে প্রতিপক্ষের লোকজনদের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদেরকে পাওয়া যায়নি। এ বিষয়ে বাউফল থানার ওসি মনিরুল ইসলাম বলেণ, থানায় মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।