স্বাধীনতার দীর্ঘ ৪৭ বছর পরও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা আসেনি!

দিনাজপুরে বার কাউন্সিল নির্বাচনে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য প্যানেল (নীল প্যানেল) প্রার্থীদের পরিচিতি সভা স্বাধীনতার দীর্ঘ ৪৭ বছর পরও দেশে বিচার বিভাগের স্বাধীনতা আসেনি। গণতন্ত্র, আইনের শাসন ও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা না থাকলে কারো অধিকার প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব নয়। আসন্ন বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচনের মাধ্যমে সৎ, যোগ্য ও বলিষ্ঠ নেতৃত্ব প্রতিষ্ঠা করা হবে। দেশে গনতন্ত্র, আইনের শাসন ও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা প্রতিষ্ঠা করা হবে।

বেনাভোলেন্ট ফান্ডসহ আইনজীবীদের অধিকার, নিরপেক্ষ ও স্বাধীন বিচার বিভাগ, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠাসহ আইনজীবী অন্যান্য সকল সমস্যা সমাধান করা হবে।

বৃহস্পতিবার (৩ মে) সকালে দিনাজপুর জেলা আইনজীবী সমিতি মিলনায়তনে বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচন-২০১৮ উপলক্ষে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য প্যানেল (নীল প্যানেল) মনোনিত প্রার্থীদের পরিচিতি সভায় আইনজীবী নেতারা এসব কথা বলেন। বক্তারা বলেন, কারাগারে অন্তরিন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। তাই পরিবর্তনের লক্ষ্যে বিচার বিভাগ ও গণতন্ত্রের স্বার্থে আসন্ন বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচনে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য প্যানেলের প্রার্থীদের নির্বাচিত করতে হবে।

দিনাজপুর জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি মো. নুরুজ্জামান জাহানী’র সভাপতিত্বে পরিচিতি সভায় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচনে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য প্যানেলের (নীল প্যানেল) সাধারণ আসনের প্রার্থী সাবেক এ্যাটর্নী জেনারেল সিনিয়র আইনজীবী আব্দুল জামিল মোহাম্মাদ আলী, নীল প্যানেলের প্রার্থী সিনিয়র আইনজীবী মো. ফজলুর রহমান, সাবেক ডেপুটি এ্যাটর্নী জেনারেল তৈমুর আলম খন্দকার, সিনিয়র আইনজীবী বোরহান উদ্দিন, মো. হেলাল উদ্দিন মোল্লা, মোহাম্মদ আব্বাস উদ্দিন, সাবেক সংসদ সদস্য সৈয়দা আশিফা আশরাফী পাপিয়া।

জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. তহিদুল হক সরকারের সঞ্চালনায় পরিচিতি সভায় প্রার্থীদের পরিচিয় করিয়ে দেন জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম দিনাজপুর ইউনিটের সভাপতি মো. আব্দুল হালিম। পরিচিতি সভায় জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম দিনাজপুর ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক আ ন ম হাবিবুল্লাহ, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু মাসুদ ওবায়দুল্লাহ তারেকসহ জেলা আইনজীবী সমিতি ও আইনজীবী ফোরামের অন্যান্য নেতাকর্মী, বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও দিনাজপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, জেলা বিএনপির আহবায়ক সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব এজেডএম রেজওয়ানুল হক, যুগ্ম আহবায়ক আলহাজ্ব মো. লুৎফর রহমান মিন্টু, মো. মোকাররম হোসেন, বখতিয়ার আহম্মেদ কচিসহ বিএনপির অন্যান্য নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন। পরে আইনজীবী নেতৃবৃন্দ রংপুরের উদ্দেশ্যে দিনাজপুর ত্যাগ করেন।

উল্লেখ্য, আগামী ১৪ মে সোমবার বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এতে সারা দেশের প্রায় ৪২ হাজার আইনজীবী ভোট প্রদান করবেন বলে জানা গেছে।

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর প্রতিনিধি