সম্মানজনক হোয়াইটলি অ্যাওয়ার্ড পেলেন শাহরিয়ার

বাংলাদেশের শাহরিয়ার সিজার রহমান এশিয়ার সবচেয়ে বড় কচ্ছপের পৃথিবীতে টিকে থাকার লড়াইয়ে সঙ্গী হয়ে  জিতে নিয়েছেন সম্মানজনক হোয়াইটলি অ্যাওয়ার্ড। ক্রিয়েটিভ কনজারভেশন অ্যালায়েন্সের সহপ্রতিষ্ঠাতা তিনি। লন্ডনের রয়্যাল জিওগ্রাফিক সোসাইটিতে বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন ব্রিটিশ রাজকুমারী। এশিয়ার সবচেয়ে বড় কচ্ছপ নিয়ে কাজ করার জন্য এ পুরস্কার পেলেন শাহরিয়ার সিজার রহমান। পার্বত্য চট্টগ্রামের দুর্গম বনাঞ্চলে এ কচ্ছপের দেখা মিলেছে।

২০১১ সালে বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্ত এলাকার বনাঞ্চলে বিরল প্রাণীর অনুসন্ধান শুরু করেন শাহরিয়ার। বলা হয়ে থাকে, এ বনাঞ্চলে মানুষের পায়ের চিহ্ন যেমন কম পড়েছে, তেমনি জীববৈচিত্র্যে বিশ্বের অন্য অনেক বনাঞ্চলের চেয়ে সমৃদ্ধ এ বনাঞ্চল। আর এখানেই এশিয়ার সবচেয়ে বড় কচ্ছপটির দেখা পেয়ে যায় শাহরিয়ারের দল। শাহরিয়ারের দল এ কচ্ছপের সন্ধান পাওয়ার আগ পর্যন্ত বিরল প্রাণীটিকে বিলুপ্ত হয়েছে বলে মনে করা হতো।

এরপর কচ্ছপের এই প্রজাতিটির পৃথিবীতে টিকে থাকার লড়াইয়ে সঙ্গী হয়ে যান শাহরিয়ার। আর এতে তিনি স্থানীয় মানুষদেরও নিজের দলে ভেড়ান। ম্রো শিকারিদের তিনি জীববিজ্ঞান নিয়ে শিখিয়েছেন।

শাহরিয়ার বিশ্বাস করেন বাংলাদেশি মানচিত্রের একবিন্দু পরিমাণ জায়গাও বিশাল জীববৈচিত্র সংরক্ষণ করতে পারে।