আন্দোলন কর্মসূচিতে যোগ হলো প্রতীকী অনশন

রাজধানীর শাহাবাগে এখনো উত্তাল অবস্থা বিরাজ করছে। কোটা সংস্কারের আন্দোলন চলবে ৭ তারিখ পর্যন্ত। আগামীকাল থেকে সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল প্রকার ক্লাস ও পরীক্ষা বর্জন এবং প্রতীকী অনশন চালানোর ঘোষণা দিয়েছে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। 

এদিকে গতকাল আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের সাথে বৈঠক শেষে কোটা যৌক্তিক সংস্কারের আশ্বাস দিয়েছে সরকার। সরকার ৭ তারিখ পর্যন্ত সময় নিলেও সরকারের দেয়া আশ্বাসের ওপর অনাস্থা প্রকাশ করে আন্দোলনকারীর একাংশ আন্দোলনের ঘোষণা দেয়।

বিক্ষোভকারীদের অভিযোগ সকল শিক্ষার্থীর সামনে কেন আলোচনা করা হয়নি? যেখানে হাজার হাজার মেধাবী শিক্ষার্থীর নিরাপত্তা আছে বলা হচ্ছে সেখানে কেন সরকারের পক্ষ থেকে প্রতিনিধি এসে আলোচনা করতে চাচ্ছেন না? এছাড়া যে ২০ জন প্রতিনিধির দল আলোচনায় অংশ নিয়েছেন তারা শিক্ষার্থীদের সাথে আলোচনা ছাড়াই কেন বৈঠকের সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছেন?

তাদের ধারণা এই আশ্বাস শুধুমাত্র আন্দোলন স্থগিত করার জন্য। তাই তারা পুনরায় বিক্ষোভ মিছিল করা সহ টিএসসিতে অবস্থানের পাশাপাশি প্রতীকী অনশন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।