রাজীবকে মানসিক সাহস যোগাতে উৎসাহ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা

আজ সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ডা. মো. সামসুজ্জামান জানান রাজীবের শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে অনেক ভালো। রাজীবের চিকিৎসায় গঠিত সাত সদস্যের মেডিকেল বোর্ডের প্রধান সমন্বয়কারী ডা. মো. সামসুজ্জামান। 

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে দুই বাসের রেষারেষিতে হাত হারানো রাজীবের শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে এখন অনেক ভাল ও উন্নতির দিকে। ডা. মো. সামসুজ্জামান বলেন, ‘আজ সকালে আমরা তার শরীরিক অবস্থা পর্যবেক্ষণ করেছি। সে চিকিৎসকদের সঙ্গে মোটামুটি কথা বলছে। তাতে মনে হয়েছে, তার ফিজিক্যাল বিহেভিয়র ভালোর দিকে। আজ সে মোটামুটি খাবার খাচ্ছে। চিকিৎসকরা চেষ্টা করছেন তাকে মানসিকভাবে শক্ত করার জন্য। ইতোমধ্যে সে জেনে গেছে তার হাত নেই। এটা জানার পর মেন্টালি শক খাওয়া স্বাভাবিক। চিকিৎসকরা শক্ত মানসিকতার জন্য তাকে উৎসাহ দিচ্ছেন।’

রাজীবের খালা হ্যাপী আক্তার বলেন, ‘সে এখনও আমাদের সঙ্গে কোনো কথা বলেনি। কোনো কিছু জিজ্ঞাসা করলে শুধু বলে “হুম”। এছাড়া আজ যখন তাকে খিচুড়ি খাওয়ানোর চেষ্টা করা হয় তখন সে খেতে চাচ্ছিল না। জানতে চাইলে বলে, পেটে ব্যাথা। আর কিছু বলেনি।’

অন্যদিকে, রাজীব হোসেনের চিকিৎসার যাবতীয় খরচ সরকার বহন করবে বলে ঘোষণা দেন স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। সুস্থ হলে তাকে সরকারি চাকরি দেওয়ার আশ্বাসও দেন মন্ত্রী। এছাড়া রাজীব হোসেনের চিকিৎসা ব্যয় ওই দুই বাস মালিককে বহন করতে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।