আজ বীরশ্রেষ্ঠ মুন্সী আবদুর রউফের শাহাদাতবার্ষিকী

বীরশ্রেষ্ঠ মুন্সী আবদুর রউফের ৪৫তম শাহাদাতবার্ষিকী আজ রোববার। ১৯৭১ সালের এ দিনে পাকিস্তানি সেনাদের সঙ্গে সম্মুখযুদ্ধে তিনি রাঙামাটির নানিয়ারচর উপজেলার বুড়িঘাট নামক স্থানে শহীদ হন। ২০০৮ সালের ৮ মে তার নামে নিজ গ্রামের নামকরণ করা হয় রউফনগর।

মুন্সী আবদুর রউফ ১৯৬৩ সালের ৮ মে তৎকালীন ইপিআরে সৈনিক পদে যোগ দেন। একাত্তরের ৮ এপ্রিল মহালছড়ি নৌপথ অঞ্চলের বুড়িঘাট নামক স্থানে চিংড়িখালের প্রতিরক্ষায় নিয়োজিত ছিলেন তিনি। মুন্সী আবদুর রউফের মেশিনগানের গুলিতে পাকিস্তানি বাহিনীর দুটি লঞ্চ, একটি স্পিডবোট ডুবে দুই প্লাটুন সেনার মৃত্যু ঘটে।

এ সময় প্রতিপক্ষের মর্টার শেলের আঘাতে তিনি শহীদ হন। তখন তিনি ল্যান্স নায়েক পদে কর্মরত ছিলেন। পরে সহযোদ্ধারা সেখানেই তাকে কবর দেন। ১৯৯৬ সালে বুড়িঘাট নিবাসী জ্যোতিষ চন্দ্র চাকমা ও দয়ালকৃষ্ণ চাকমার সহায়তায় মুন্সী আবদুর রউফের কবর শনাক্ত করা সম্ভব হয়। ১৯৯৭ সালে সেখানে একটি স্মৃতিসৌধ নির্মাণ করা হয়।