আজ ঢামেক থেকে বাড়ী ফিরল শেহরিন

নেপালের কাঠমান্ডুতে বিমান দুর্ঘটনায় আহত শেহরিন আহমেদের শারীরিক অবস্থা অনেকটা সুস্থ। আজ রোববার ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল থেকে বাড়িতে যাওয়ার ছাড়পত্র দেয়া হবে তাকে। সবকিছু ঠিক থাকলে সকাল দশটার দিকে তিনি ঢামেক থেকে বাড়িতে ফিরবেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ঢামেকের বার্ন ইউনিটের প্রধান ডা. সামন্ত লাল সেন। তিনি বলেন, আরও কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে তাকে সকাল ১০ টার দিকে ছাড়পত্র দেয়ার কথা রয়েছে। তার শরীরের দগ্ধ স্থানে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে লাগানো চামড়াও শুকিয়ে গেছে। এখন তিনি সুস্থ রয়েছেন। তবে চলে যাওয়ার পর আরও কিছুদিন তাকে ফলোআপে রাখব আমরা।

তবে চিকিৎসাধীন এ্যানির ব্যাপারে এখনও কিছু বলতে পারেননি তিনি। কারণ এ্যানি ট্রমায় ভুগছেন। তাই তার আরও চিকিৎসা প্রয়োজন হতে পারে বলে জানিয়েছেন ডা. সামন্ত লাল সেন।

উল্লেখ্য, গত ১২ মার্চ নেপালের কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণকালে বিধ্বস্ত হয় ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট বিএস ২১১। এতে নিহত হন ৪৯ জন, যাদের মধ্যে ২৬ জন বাংলাদেশি। আহত হন আরও ১০ বাংলাদেশি। তাদের মধ্যে তিনজনকে বিদেশে নিয়ে যাওয়া হলেও দেশে আনা হয় সাতজনকে।

তাদের মধ্যে শাহিন ব্যাপারী নামে একজন চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। সিঙ্গাপুরে নেয়া হয় কবির হোসেন নামে একজনকে। ঢামেকে চিকিৎসা শেষে বাড়ি ফিরেছেন মেহেদী হাসান, কামরুন্নাহার স্বর্ণা ও শেখ রাশেদ রুবায়েত।