কান চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনী ছবি ‘এভরিবডি নৌস’

কান চলচ্চিত্র উৎসবের ৭১তম আসরের উদ্বোধনী ছবি আসগর ফারহাদির ‘এভরিবডি নৌস’। আগামী ৮ মে পালে দো ফেস্টিভাল ভবনের গ্র্যান্ড থিয়েটার লুমিয়েরে এর উদ্বোধনী প্রদর্শনী হবে প্রতিযোগিতা বিভাগে। বৃহস্পতিবার (৫ এপ্রিল) আয়োজকরা বাংলা ট্রিবিউনকে এ সংক্রান্ত একটি ই-মেইল পাঠিয়েছেন।

‘এভরিবডি নৌস’ আসগর ফারহাদির অষ্টম ছবি। এর সব সংলাপ স্প্যানিশ। স্পেন ও পর্তুগালের পার্বত্য অঞ্চল আইবেরিয়ান পেনিনসুলায় ছবিটির পুরো শুটিং হয়েছে। এর গল্প লরা নামের এক নারীকে ঘিরে। আর্জেন্টিনার বুয়েন্স আয়ারসে স্বামী-সন্তান নিয়ে তার সুখের সংসার। একদিন পারিবারিক এক অনুষ্ঠানে অংশ নিতে স্পেনে নিজেদের গ্রামে ফেরে তারা। তখন অপ্রত্যাশিত একটি ঘটনা বদলে দেয় তাদের জীবনের গতিপথ।

কান চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনী ছবি ‘এভরিবডি নৌস’

ইংরেজি অথবা ফরাসির বাইরের কোনও ভাষার ছবির মাধ্যমে কান উৎসবের উদ্বোধন সচরাচর হয় না। সবশেষ ২০০৪ সালে পেদ্রো আলমোদোভারের স্প্যানিশ ভাষায় নির্মিত ‘ব্যাড এডুকেশন’ উৎসবের উদ্বোধনী দিনে দেখানো হয়েছিল।

মনস্তাত্ত্বিক থ্রিলার ধাঁচের ছবিটিতে অভিনয় করেছেন দুই স্প্যানিশ তারকা পেনেলোপি ক্রুজ ও হাভিয়ার বারদেম। এছাড়া আছেন আর্জেন্টিনার রিকার্ডো দারিন। আরও আছেন বারবারা লেনি, এদুয়ার্দ ফার্নান্দেজে, এলভিরা মিঙ্গুয়েজ, র‌্যামন বারিয়া, কার্লা ক্যাম্প্রা ও ইনমা কুয়েস্তা।

যথারীতি আসগর ফারহাদির চারপাশে ছিলেন নেপথ্যের বাঘা ব্যক্তিত্বরা। এই ফার্স্টক্লাস টিমের সদস্যরা হলেন: হোসে লুই আলকেইন (পেদ্রো আলমোদোভার, কার্লোস সাউরা ও বিগাস লুনার নিয়মিত চিত্রগ্রাহক), কস্টিউম ডিজাইনার সোনিয়া গ্র্যান্ড (উডি অ্যালেনের ‘মিডনাইট ইন প্যারিস’ ও আলেহান্দ্রো আমেনাবারের ‘দ্য আদারস), ইরানি সম্পাদক হায়েদা সাফিয়ারি (আসগর ফারহাদির ‘অ্যা সেপারেশন’ ও ‘দ্য সেলসম্যান’)। গত এক দশকে ইরানের সবচেয়ে প্রভাবশালী ও আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন চলচ্চিত্রকার হিসেবে নিজেকে চিনিয়েছেন আসগর ফারহাদি। উত্তেজনাপূর্ণ চিত্রনাট্যের পাশাপাশি নির্মাণশৈলীতে বাস্তবতাকে আশ্রয় করে নৈপুণ্য দেখিয়েছেন ৪৫ বছর বয়সী এই নির্মাতা।

২০১১ সালে বার্লিন চলচ্চিত্র উৎসবে আসগর ফারহাদির ‘অ্যা সেপারেশন’ সোনার ভালুক (গোল্ডেন বিয়ার) জেতে। এরপর গোল্ডেন গ্লোব, সিজার ও অস্কার জেতে ছবিটি। ২০১৩ সালে তার পরিচালিত ‘দ্য পাস্ট’ জায়গা করে নেয় কান উৎসবের প্রতিযোগিতা বিভাগে। এতে দারুণ অভিনয়ের সুবাদে ফরাসি তারকা বেরেনিস বেজো কানে সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার জেতেন।

২০১৬ সালে প্রতিযোগিতা বিভাগে নির্বাচিত ‘দ্য সেলসম্যান’-এর জন্য কানে সেরা চিত্রনাট্যকারের পুরস্কার পান আসগর ফারহাদি। একই ছবির জন্য সেরা অভিনেতা হন শাহাব হুসেইনি। এছাড়া অস্কারে বিদেশি ভাষার ছবির বিভাগে সেরা হয়েছে এটি।