ত্রিদেশীয় সিরিজে নাও খেলতে পারেন কোহলিরা

শ্রীলঙ্কায় ত্রিদেশীয় টি-২০ সিরিজে ভারতের সিনিয়র তারকাদের নাও দেখা যেতে পারে। দীর্ঘ দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের ক্লান্তি কাটিয়ে উঠতে বিশ্রাম দেওয়া হতে পারে বিরাট কোহলিদের। এমনটাই ইঙ্গিত দিয়েছেন দেশটির জাতীয় দলের নির্বাচকরা। 

আগামী বছর ইংল্যাল্ডের মাটিতে ওয়ান ডে বিশ্বকাপের আগে ভারতীয় ক্রিকেটারদের চোট আঘাত থেকে মুক্ত রাখতে পর্যাপ্ত বিশ্রাম দিতে চান নির্বাচকরা। তাছাড়া টানা ক্রিকেট খেলার ধকলের বিষয়টাও মাথায় থাকছে তাদের। বিশেষ করে তিন ফরমেটেই যে সব সিনিয়র ক্রিকেটার জাতীয় দলের প্রতিনিধিত্ব করে থাকেন, তাদের ক্রিকেট থেকে সাময়িক বিরতির প্রয়োজন আছে বলেই মনে করেন নির্বাচকরা।

কিছুদিন পরেই যেহেতু ভারতীয় দলের সব সদস্যই নিজ নিজ ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে আইপিএলে ব্যস্ত হয়ে পড়বেন, তাই দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের পর মাঝের সময়টায় বেশ কয়েকজন তারকাকে বিশ্রাম দেওয়া হতে পারে বলেই ধারণা বোর্ডের।  ত্রিদেশীয় এই সিরিজে শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের বিরুদ্ধে অংশ নেবে ভারত। তবে এই টুর্নামেন্ট তেমন একটা গুরুত্বপূর্ণ মনে করছে না ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। তাই এই টুর্নামেন্টকে রিজার্ভ বেঞ্চ যাচাই করার আদর্শ মঞ্চ হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে নির্বাচকদের কাছে।

জানা গেছে, ভুবনেশ্বর কুমার ও জসপ্রীত বুমরাহকে বিশ্রাম দেওয়া হতে পারে শ্রীলঙ্কা সফরে। সেক্ষেত্রে পেস আক্রমণে মোহম্মদ সিরাজ ও বাসিল থাম্পিকে জুড়ে দেওয়া হতে পারে জয়দেব উনাদকাট ও শার্দুল ঠাকুরের সঙ্গে। ব্যাটিং অর্ডারে মায়াঙ্ক আগরওয়াল সুযোগ পেতে পারেন। বিরাট কোহলি চাইলে তাকেও সরিয়ে রাখা হতে পারে সিরিজ থেকে। পরিবর্তে রোহিত শর্মা অথবা অজিঙ্কা রাহানেকে অধিনায়ক করা হতে পারে। অক্ষর প্যাটেল প্রধান স্পিনারের ভূমিকা নিতে পারেন টুর্নামেন্টে। দলে থাকতে পারেন ওয়াশিংটন সুন্দর।