আজ থেকে পাঁচ দিনব্যাপী কম্পিউটার মেলা শুরু

রাজধানীর এফিল্যান্ট রোডের কম্পিউটার সিটি সেন্টারে (মাল্টিপ্লান) আজ থেকে শুরু হলো পাঁচ দিনব্যাপী দেশের বৃহৎ কম্পিউটার মেলা ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮। মেলায় ৬৫০টি প্রতিষ্ঠান সর্বাধুনিক প্রযুক্তি পণ্যের পসরা সাজিয়েছে। মেলা চলবে ১১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত।

বুধবার সকালে মাল্টিপ্ল্যান সেন্টারে এই মেলার উদ্বোধন করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। এসময় উপস্থিত ছিলেন, তথ্যপ্রযুক্তি ও শিক্ষাবিদ ড. জামিলুর রেজা চৌধুরী, কম্পিউটার সিটি সেন্টারের সভাপতি ও এই মেলার আহ্বায়ক তৌফিক এহসান, বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতির সভাপতি আলী আশফাক, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ১৮ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জসীম উদ্দিনসহ তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবসায়ের সঙ্গে যুক্ত ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতারা।

মেলার উদ্বোধনকালে মোস্তাফা জব্বার বলেন, মাল্টিপ্লানের প্রথম কম্পিউটার মেলা শুরু করে প্রায় সব মেলায় আমি উপস্থিত ছিলাম। এই আয়োজনের ফলে তথ্যপ্রযুক্তি খাত নিয়ে সবার আগ্রহ বাড়ে। দেশের তরুণরা এখন প্রযুক্তির জ্ঞান অন্বেষণে অনেক বেশি উৎসাহী। তিনি আরও বলেন, দেশে সফটওয়্যার খাতের পাশাপাশি হার্ডওয়্যার খাতকেও সমান গুরুত্ব দিতে হবে। সফটওয়্যার রপ্তানি করে আমরা যেমন সফলতা পেয়েছি তেমনি করে হার্ডওয়্যার রপ্তানি করেও বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করতে চাই।

ড. জামিলুর রেজা চৌধুরী বলেন, তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বাংলাদেশ অভাবনীয় উন্নতি সাধন করেছে। দেশের টেলিকম খাত অচিরেই ফোরজির জগতে প্রবেশ করতে যাচ্ছে। ফলে এই খাতে যেসব তরুণরা আউটসোর্সিং করছেন তারা আরও বেশি সাফল্য পাবেন। তৌফিক এহসান বলেন, কম্পিউটার সিটি সেন্টারে এক লাখ ৩২ হাজার বর্গফুট জায়গাজুড়ে ৬৫০টি প্রতিষ্ঠান প্রযুক্তিপণ্য নিয়ে অংশ নিয়েছে। মেলায় বিশেষ আয়োজন হিসেবে থাকছে শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, সেলিব্রিটিদের মেলা পরিদর্শন, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশ ও মেলা পরিদর্শনের ব্যবস্থাসহ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

এ ছাড়াও মেলা চলাকালে প্রবেশ টিকেটের ওপর র‍্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হবে| এ মেলায় বাংলাদেশের শীর্য আইসিটি পণ্য আমদানিকারক ও ব্যবসায়ীদের বিশ্বের মানসম্পন্ন ব্র্যান্ডের লেটেস্ট প্রযুক্তি প্রদর্শন করা হবে। মেলায় আসা বিভিন্ন প্রযুক্তি পণ্যে থাকবে বিশেষছাড় ও আকর্ষণীয় উপহার। এছাড়াও মেলা চলাকালে থাকছে পিঠা উৎসব, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, র‍্যাফেল ড্রসহ প্রতিটি ফ্লোরে নানা আয়োজন। ১০ ফেব্রুয়ারি সকাল দশটায় তিন বছর থেকে ১২ বছর বয়সীদের তিনটি গ্রুপে চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে।

মেলার গোল্ড স্পন্সর আসুস, এফোরটেক ও লেনেভো। সিলভার স্পন্সর টিপি-লিংক, ডি-লিংক ও ইউসিসি। মেলায় প্রবেশ মূল্য ১০ টাকা। তবে স্কুল শিক্ষার্থীরা বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশ করতে পারবে|