‘মশারির মধ্যে মশারি খাটাবেন না’

কোনও খারাপ চরিত্রের লোককে আওয়ামী নেয়া যাবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, ‘সদস্য সংগ্রহের নামে চিহ্নিত চাঁদাবাজ, সন্ত্রাসী, ভূমিদস্যু, মাদকাসক্তদেরও দলে নেওয়া যাবে না।’ শুক্রবার মানিকগঞ্জে এক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন কাদের। আগামী সংসদ নির্বাচনে সামনে রেখে দলকে আরও গতিশীল করার প্রত্যয়ে সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন উপলক্ষে ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

সকাল ১১টায় জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে অনুষ্ঠানটি শুরু হয়। স্থানীয় তিন সংসদ সদস্য স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন, মমতাজ বেগম ও নাঈমুর রহমান দুর্জয় এ সময় দলের সদস্য পদ নবায়ন করেন। এছাড়া কয়েকজন নতুন সদস্যপদ গ্রহণ করেন। অন্য নেতাদের বক্তব্য শেষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে কাদের বলেন, ‘চিহ্নিত সাম্প্রদায়িক অপশক্তি ও স্বাধীনতাবিরোধী কোনও ব্যক্তিকে দলে ঢোকানোর চেষ্টা থেকে বিরত থাকতে হবে।’

নেতা-কর্মীদেরকে জনগণের সঙ্গে ভালো ব্যবহার করার আহ্বান জানিয়ে কাদের বলেন, ‘দেশে অনেক উন্নয়ন হয়েছে। আপনাদের খারাপ ব্যবহারের কারণে দলের সুনাম ম্লান হয়ে যায়, এমন কাজ থেকে বিরত থাকুন। দলের নেতাদের সম্পর্কে অপপ্রচার না করে, উন্নয়নের কথা জনগণকে বলুন।’

দলের ভেতর উপদল বা কোন্দলে জড়িত নেতা-কর্মীদেরকে সতর্ক করেন কাদের। বলেন, ‘ঘরের মধ্যে ঘর করবেন না। মশারির মধ্যে মশারি খাটাবেন না।’ কোন্দল করে মনোনয়ন বাগানো যাবে না জানিয়ে কাদের বলেন, ‘নেত্রীর কাছে জরিপ রিপোর্ট জমা আছে। প্রতি তিনমাস পর পর জরিপ রিপোর্ট যাচ্ছে। যিনি জনগণের কাছে বেশি গ্রহণযোগ্য বলে বিবেচিত হবেন, শেখ হাসিনা তাকেই মনোনয়ন দেবেন।’

মানিকগঞ্জকে তিনভাগ করে সদস্য সংগ্রহ অভিযানে নামার তাগাদাও দেন কাদের। বলেন, ‘সদস্য সংগ্রহ অভিযান ঘরে ঘরে নিয়ে যেতে হবে। কোন বাড়িতে কতজন সদস্য হলো, কতজন নতুন, কতজন পুরনো, কতজন অন্য পার্টি করে এবং কতজন নিরপেক্ষ রয়েছে এ লিস্ট তৈরি করতে হবে। দায়সারা গোছের সদস্য সংগ্রহ করা চলবে না।’

বিএনপির আন্দোলনের হুমকি নিয়ে আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, ‘বিএনপি আন্দোলনের নামে দফায় দফায় হুমকি দিচ্ছে। দেখতে দেখতে তাদের আন্দোলন নয় বছর পার হয়ে গেছে। এখন আন্দোলনে ব্যর্থ্ হয়ে বিএনপি দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে।’

মানিকগঞ্জ আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম মহীউদ্দীনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সালামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন, আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য সাহারা খাতুন, আব্দুল মান্নান খান এমপি, উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য মুকুল বোস, দপ্তর সম্পাদক আব্দুস সোবহান গোলাপ, সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী।