বরগুনায় র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে তিন সদস্য বনদস্যু নিহত

বরগুনায় র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সুন্দরবনের বনদস্যু মুন্না বাহিনীর তিন সদস্য নিহত হয়েছেন। পটুয়াখালী র‌্যাব-৮ এর অধিনায়ক উইং কমান্ডার হাসান ইমন আল রাজীব জানান, বুধবার ভোরে উপজেলার মাঝেরচর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- বনদস্যু দল ‘মুন্না বাহিনীর’ প্রধান স্বপন প্যাদা (৪৫), লিটন খন্দকার (৩৫) ও সাগর খান (৫০)। এসময় বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও গোলাবারুদ উদ্ধার করা হয়।

উইং কমান্ডার হাসান ইমন আল রাজিব আরও জানান, সুন্দরবনে মাঝের চরে বনদস্যু মুন্না বাহিনীর অবস্থান করছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাবের একটি দল সেখানে অভিযান চালায়। এসময় র‌্যাব সদস্যদের উপস্থিতি বুঝতে পেরে তাদের লক্ষ্য করে গুলি করে বনদস্যুরা। এসময় র‍্যাবও পাল্টা গুলি চালায়।

র‍্যাব বলছে, উদ্ধার হওয়া অস্ত্রের মধ্যে দুটি একনলা বন্দুক, একটি কাটা রাইফেল, চারটি পাইপগান ও বিভিন্ন ধরনের বন্দুকের ৩৮ রাউন্ড গুলি ও পাঁচটি দেশি ধারালো অস্ত্র রয়েছে।

র‍্যাব-৮ এর অধিনায়কের দাবি, স্বপন ‘মুন্না বাহিনী’ নামে বনদস্যু বাহিনী গড়ে তুলে সুন্দরবন ও বঙ্গোপসাগরের উপর নির্ভরশীল জেলে, বাওয়ালি ও মৌয়ালদের অপহরণ করে মুক্তিপণ আদায় করে আসছিল।

গত ৪ জানুয়ারি ‘মুন্না বাহিনীর সদস্যরা’ পটুয়াখালীর সোনারচর চার জেলেকে অপহরণ করছিল বলে জানান এ র‍্যাব কর্মকর্তা।