অবৈধভাবে বালু উত্তোলনে কলেজ ভবনে ফাঁটল

কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলার একটি প্রভাবশালী পরিবার অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করায় উমানন্দ স্কুল এন্ড কলেজ ভবনে ফাঁটল ও টিনসেট ঘর ধ্বসে পরার উপক্রম হয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার তবকপুর ইউনিয়নে উমানন্দ স্কুল এন্ড কলেজের দক্ষিণ পাশে একটি গর্ত থেকে ওই এলাকার প্রভাবশালী মৃত মোহাম্মদ আলীর পুত্র মোফাজ্জল হক আমীন, ফারুক হোসেন আমীন ও আলী আকবর আমীন অবৈধভাবে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন করায় কলেজের বিজ্ঞান ভবনে ফাঁটল ও টিনসেট ঘর ধ্বসে পরা শুরু হয়েছে।শুক্রবার (২২ ডিসেম্বর) সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, বাৎসরিক পরীক্ষা শেষে প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ দেয়ার সুযোগে স্থানীয় প্রভাবশালী মহলটি গত ১ সপ্তাহ ধরে বিদ্যালয়ের পাশের গর্ত থেকে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বিপুল পরিমান বালু উত্তোলন করে। এলাকাবাসী বাঁধা দিলেও তারা কর্ণপাত না করে বালু উত্তোলনের কাজ অব্যাহত রাখে। এঘটনাটি প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষক অবগত হন।  শুক্রবার (২২ডিসেম্বর) প্রতিষ্ঠান ধ্বসে পড়ার খবর পেয়ে স্থানীয় সাংবাদিকগণ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করতে গেলে স্থানীয় জনসাধারনের তোপের মূখে প্রভাবশালী চক্রটি তরিঘরি করে ড্রেজার মেশিন ও বালু উত্তোলনের সরঞ্জামাদি নিয়ে সটকে পরে।

এ ব্যাপারে প্রতিষ্ঠানটির ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ শামছুল আলম ও ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আবদুর রশিদ প্রতিষ্ঠানের অপূরনীয় ক্ষতির বিষয়টি লিখিতভাবে সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবগত করবেন এবং তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান। অভিযুক্ত মোফাজ্জল হক আমীন, ফারুক হোসেন আমীন বালু উত্তোলনের বিষয়টি স্বীকার করে দ্বাম্ভিকতার সহিত বলেন, যা হবার তাই হবে।

মোঃ মনিরুজ্জামান, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি