জীবনাবসানের মধ্য দিয়ে শেষ হলো বিষধর চন্দ্রবোড়ার উপাখ্যান

ফরিদপুর চরভদ্রাসনের গোপালপুর ফেরীঘাট হতে প্রায় ৪০০ মিটার দক্ষিণে মৃত অবস্থায় পরে আছে সেই বিষধর চন্দ্রবোড়াটি। স্বস্তি ফিরেছে স্থানীয়দের মনে। জীবনাবসানের মধ্য দিয়ে যেন শেষ হলো তার উপাখ্যান।

শুক্রবার সকালে পরিবার পরিকল্পনা পরিদর্শক মেহেদী হাসানের সাথে সাপটির শেষ অবস্থার ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন, সাপটিকে তিনি বৃহ:স্পতিবার দুপুরে নদী পারে মৃত অবস্থায় দেখেছেন। পরে উক্ত স্থানে গিয়ে সাপটিকে মৃত দেখতে পাওয়া যায়। এসময়ে নদীতে গোসল করতে আসা কামার ডাঙ্গী গ্রামের সাফিয়া বেগমের(৩৫) সাথে কথা হলে তিনি সপটি মরে যাওয়ায় স্বস্তি প্রকাশ করে বলেন, জায়গার সাপ জায়গায় ছাড়া হইছে শুনে ভয় পাইছিলাম,মইরা গেছে ভাল হইছে।

প্রসঙ্গত গত মঙ্গলবার খালাশী ডাঙ্গী গ্রামের এক মুগ ক্ষেত হতে চন্দ্রবোড়াটি ধরা হয়। পরে চরভদ্রাসন উপজেলার বন বিভাগের কর্মকর্তা মো: সালাউদ্দীন(ফরেস্টার) ও তার অফিস ষ্টাফ প্রাণ গোপাল লোকালয়ের কাছেই পানিতে ছেড়ে দেওয়ার একঘন্টা পর চন্দ্রবোড়াটি পূণরায় নদী পারে ফিরে আসলে উদ্বেগ প্রকাশ করে এলাকাবাসী।

হারুন-অর-রশীদ,ফরিদপুর প্রতিনিধি