উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে যাচ্ছেন মহিউদ্দিন

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীকে সিঙ্গাপুরে নেওয়া হয়েছে উন্নত চিকিৎসার জন্য।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টায় ঢাকায় শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে জেট এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে সিঙ্গাপুরের উদ্দেশ্যে রওনা দেন মহিউদ্দিন। মহিউদ্দিন চৌধুরীর ছেলে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল ও বোরহানুল হাসান চৌধুরী সালেহীন এবং জামাতা ডা.সেলিম আকতার চৌধুরীও সিঙ্গাপুরে গেছেন।

ঢাকা ছাড়ার আগে মহিউদ্দিনের ছেলে মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল দেশবাসীর কাছে বাবার সুস্থ্যতার জন্য দোয়া কামনা করেছেন। তিনি জানান, সিঙ্গাপুরের গ্লেইন ইগল হাসপাতালে ভর্তি করা হবে মহিউদ্দিন চৌধুরীকে। সেখানে তার একটি অস্ত্রোপচার হওয়ার কথা রয়েছে। এর আগে বিকালে স্কয়ার হাসপাতাল থেকে বিমানবন্দরের পথে নেওয়ার আগে মহিউদ্দিনের সঙ্গে সাক্ষাত করে সুস্থতা কামনা করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

বিমানবন্দরে মহিউদ্দিনকে বিদায় জানান আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম এবং সাবেক ছাত্রলীগ নেতা শাহজাদা মহিউদ্দিন ও ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুল হায়দার চৌধুরী রোটন। এসময় চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। আগামী রবিবার মহিউদ্দিনের স্ত্রী হাসিনা মহিউদ্দিন সিঙ্গাপুরে যাবেন জানিয়েছেন সাবেক মেয়র মহিউদ্দিনের ব্যক্তিগত সহকারি ওসমান গণি। নিজ বাসায় অসুস্থ হয়ে পড়ার পর মহিউদ্দিনকে গত শনিবার রাতে চট্টগ্রাম নগরীর মেহেদিবাগে ম্যাক্স হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তাকে আইসিইউতে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরদিন রবিবার দুপুরে মহিউদ্দিনকে হেলিকপ্টারে ঢাকায় নিয়ে স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, মহিউদ্দিন মৃদু হার্ট অ্যাটাকের পাশাপাশি কিডনিজনিত রোগে ভুগছেন। টানা তিনবার নির্বাচিত মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী ২০১০ সালে সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে পরাজিত হন। এরপরও চট্টগ্রামে আওয়ামী লীগের রাজনীতির বড় অংশের নিয়ন্ত্রক মহিউদ্দিনকেই ভাবা হয়। চট্টগ্রামের স্বার্থসংশ্লিষ্ট ইস্যুতে আন্দোলনে এখনো মহিউদ্দিনই নিয়ামক, এমনটাই মনে করেন বন্দরনগরীর মানুষ।