আগামী ৩-৪ বছরে বন্ধ হবে এটিএম কার্ডের প্রয়োজনীয়তা

ভারতে এটিএম এবং ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ডের প্রয়োজনীয়তা কার্যত শেষ হয়ে যাবে আগামী তিন থেকে চার বছরের মধ্যে। এর প্রধান কারণ হল, অধিকাংশ মানুষই আর্থিক লেনদেন করবেন মোবাইলের মাধ্যমে। এমনটাই জানালেন নীতি আয়োগের প্রধান।

শনিবার, একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসে নীতি আয়োগের সিইও অমিতাভ কান্ত বলেন, আগামী ৩-৪ বছরে ভারতে প্রযুক্তিগতভাবে এটিএম, ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ডের প্রয়োজনীয়তা আর থাকবে না। সেই সময় মোবাইল ফোনেই আর্থিক লেনদেন হবে।

তিনি যোগ করেন, ভারতের জনসংখ্যার ৭২ শতাংশ ৩২ বছরের নীচে। ফলে, প্রযুক্তির ব্যবহারের ক্ষেত্রে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের বহু দেশের তুলনায় এখানকার মানুষের অ্যাডভান্টেজ বেশি। কারণ, ভারতের জনসংখ্যার গড় বয়স ২০৪০ সাল পর্যন্ত আরও কমবে। উল্টোদিকে, পাশ্চাত্য দেশের গড় বয়স ক্রমশ বাড়ছে।

তিনি বলেন, ভারতই বিশ্বের একমাত্র দেশ যেখানে একশো কোটি বায়োমেট্রিক্স রয়েছে। একইভাবে, দেশে ব্যবহৃত হওয়া মোবাইল ফোন এবং ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের সংখ্যাও প্রায় সম-পরিমাণের। ফলে, ভবিষ্যতে ভারতই একমাত্র দেশ হবে, যারা প্রযুক্তি ব্যবহারের দিক দিয়ে বিশ্বকে ঝাঁকিয়ে দেবে।

অমিতাভ কন্তের দাবি, ধীরে ধীরে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে আর্থিক লেনদেনের পরিমাণ বাড়ছে। তিনি বলেন, ভারতের অর্থনীতি বার্ষিক ৭.৫ শতাংশের হারে বাড়ছে। তাঁর মতে, সারা বিশ্বে যেখানে আর্থিক ভরাডুবির মধ্য দিয়ে চলছে, সেখানে ভারত উন্নয়নের মরূদ্যানে পরিণত। কন্ত বলেন, আমাদের চ্যালেঞ্জ হল আর্থিক বৃদ্ধির হার ৯-১০ শতাংশে তোলা।