`আমি তাদের হত্যা করেছি´

নয় জন বিভিন্ন বয়সী মানুষকে হত্যা করে তাদের শরীর টুকরো টুকরো করে প্রমাণ লোপাটের চেষ্টার পর এক জাপানি নাগরিককে আটক করেছে দেশটির পুলিশ। নিখোঁজ এক তরুণীর খোঁজে ওই ব্যক্তির ফ্ল্যাটে গিয়ে পাওয়া যাওয়া যায় শরীরের এসব অংশ।

জাপানের পুলিশ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, জাপানের রাজধানী টোকিওর কাছে জামা এলাকায় তাকাহিরো শিরাসি নামের ওই ব্যক্তির ফ্ল্যাটে অভিযান চালালে তাপনিয়ন্ত্রিত বিভিন্ন পাত্রে নয় জনের শরীরের টুকরো ও দুটি বিচ্ছিন্ন মাথা পাওয়া যায়।

পুলিশ কর্তৃপক্ষ বলছে, এসব শরীরের অংশ আট নারীর ও এক পুরুষের। ২৭ বছর বয়সী তাকাহিরো এসব হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত বলে ধারণা করছে তারা। জাপানি সংবাদমাধ্যম এনএইচকে-কে টোকিওর মেট্রোপলিটন পুলিশ জানিয়েছে, ওই নয় জনকে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন তাকাহিরো। পুলিশকে তিনি বলেন, ‘আমি তাদের হত্যা করেছি, আর প্রমাণ মুছে ফেলতে শরীর নিয়ে কাজ করেছি।’

যদিও তাকাহিরোর পাশের ফ্ল্যাটের এক বাসিন্দা বলেন, ওই ফ্ল্যাটে তাকাহিরো গত আগস্টে ওঠার পর থেকে দুর্গন্ধ পাচ্ছেন তিনি। তবে ২১ বছর বয়সী এক নিখোঁজ তরুণীকে সন্ধান চালাতে গিয়ে তাকাহিরোর খোঁজ পায় পুলিশ। গত ২১ অক্টোবর থেকে নিখোঁজ ওই তরুণী অনলাইনে একটি সুইসাইড নোট লেখার পর তাকাহিরোর সঙ্গে যোগাযোগ করেছিলেন।

মঙ্গলবার ওই বাড়ি ঘিরে পুলিশ অভিযান চালানোর সময় সংবাদকর্মীরা সেখানে ভিড় করেন। ৪১ বছর বয়সী স্থানীয় বাসিন্দা মিনাসী শিমবাম বলেন, এটি একটি শান্ত, নিরিবিলি এলাকা, কাছেই রয়েছে একটি ডে কেয়ার সেন্টার। বিশ্বাসই হচ্ছে না, এখানে এরকম একটি ঘটনা ঘটতে পারে।