আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ-ভারত সচিব পর্যায়ের বৈঠক

বাংলাদেশ-ভারত সচিব পর্যায়ের বৈঠক ২৭ সেপ্টেম্বর। বিদ্যুৎ বিভাগ সূত্র জানায়, বিদ্যুৎ আমদানিতে ভারত থেকে কর মওকুফ বা হ্রাসে সুযোগ চাওয়া হতে পারে দুই দিনব্যাপী ওই বৈঠকে।

২০১১ সালের জানুয়ারিতে বিদ্যুৎ সহযোগিতার বিষয়ে ঢাকা-দিল্লী সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) স্বাক্ষরিত হয়। এরপর কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা এবং কুমিল্লা দিয়ে বাংলাদেশে যথাক্রমে ৫০০ ও ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি হচ্ছে। বাংলাদেশ-ভারত আন্তঃসীমান্ত বিদ্যুৎ বাণিজ্যের পরিধি বাড়ছে। এরই অংশ হিসেবে বাংলাদেশ এবং ভারতের সচিব পর্যায়ের বৈঠক আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। এ বৈঠকে ভারতের আন্তঃসীমান্ত বিদ্যুৎ বাণিজ্য গাইডলাইন সংশোধনের ফলে আমদানিতব্য বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির আশঙ্কা দূর করার উপর জোর দিবে বাংলাদেশ।

বিদ্যুৎ বিভাগের শীর্ষ এক কর্মকর্তা বলেন, ২০৩৫ সালের মধ্যে ভারত থেকে সাড়ে ৮ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানির পরিকল্পনা রয়েছে সরকারের। কিন্তু ভারতের নতুন গাইডলাইনের কারণে এর দাম বেড়ে যাবে। তাই দাম বৃদ্ধি এড়াতে কর মওকুফ বা হ্রাসের জন্য আলোচনা করবে সরকার।