সালথায় কলেজ শিক্ষকের উপর অতর্কিত হামলার ঘটনায় আটক-১

ফরিদপুরের সালথায় আইয়ূব আলী খাঁন নামে এক কলেজ শিক্ষকের উপর অতর্কিত হামলার ঘটনায় নজরুল ইসলাম নামে ১জনকে আটক করেছে সালথা থানা পুলিশ। শুক্রবার সকালে নজরুল নামে ওই ব্যক্তিকে উপজেলার মাঝারদিয়া গ্রাম হতে আটক করা হয়। নজরুল কলেজ শিক্ষকের উপর অতর্কিত হামলার ঘটনায় মামলার ২ নম্বর আসামী বলে জানা যায়।

সালথা থানার ওসি (তদন্ত) মো: ফায়কুজ্জামান আটকের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, কলেজ শিক্ষকের উপর অতর্কিত হামলার ঘটনায় পান্নুসহ ৩ জনকে আসামি করে গতকাল বৃহস্পতিবার থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। আর ওই ঘটনার ২ নম্বর আসামী নজরুলকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলার মাঝারদিয়া এলাকা থেকে আটক করা হয়েছে। অন্য আসামীদেরও গ্রেফতারের তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে।

উল্লেখ্য, উপজেলার যদুনন্দী গ্রামের মৃত আবুল হোসেন মোল্যার ছেলে পান্নু মোল্যা (৪৫) নামে এক বই ব্যবসায়ীর সাথে বেশ কিছুদিন যাবত বিরোধ চলছিল আইয়ূব আলী খাঁন নামে ওই শিক্ষকের। আর এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওই শিক্ষক বৃহস্পতিবার সকালে কলেজে আসার সময় সকাল সাড়ে ৯ টায় যদুনন্দী বাজার সংলগ্ন নবকাম পল্লী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের গেটের সামনে ওই শিকক্ষের উপর পান্নু মোল্যা লাঠিসোঁঠা নিয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। পরে এ ঘটনায় পান্নু মোল্যাসহ ৩ জনকে আসামী করে সালথা থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। এ হামলার ঘটনা নিয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়।

হারুন-অর-রশীদ, ফরিদপুর প্রতিনিধি