গ্রীন লাইনের ‘ডাবল ডেকার’

দেশের বিভিন্ন রুটে ১৯৯০ সাল থেকে বাস সার্ভিস পরিচালনা করে আসছে বেসরকারি প্রতিষ্ঠান গ্রীন লাইন পরিবহন। যার মধ্যে সর্বশেষ সংস্করণ যুক্ত হয়েছে ডাবল ডেকার।  

প্রতিষ্ঠানসংশ্লিষ্টরা জানান, ২০০৩ সালে প্রতিষ্ঠানটি প্রথম এ দেশে ভলভো বাস নিয়ে আসে। এর দুই বছর পরই আরো আধুনিক সংস্করণ স্ক্যানিয়া যুক্ত হয় প্রতিষ্ঠানটির পরিবহন ব্যবস্থায়। এর প্রায় ৪ বছর পর ম্যান ব্র্যান্ডের সিঙ্গেল বাস নিয়ে আসা হয় ২০০৯ সালে। প্রায় ৮ বছর পর নতুন এই ডাবল ডেকার বাসগুলো যুক্ত করা হলো। গ্রীন লাইনের কর্মকর্তারা আরও জানান, গ্রীন লাইন পরিবহনের ডাবল ডেকার বাসটি জার্মানি ‘ম্যান’ ব্র্যান্ডের। অন্য বাসগুলোতে ২৭টি করে যাত্রী আসন থাকলেও এই বাসটিতে রয়েছে মোট ৪০টি সিট। প্রতিষ্ঠানটি মোট ১০টি বাস যুক্ত করেছে এই ধাপে। আর বাসগুলো গত ২৬ আগস্ট থেকে ঢাকা-চট্টগ্রাম-কক্সবাজারের পথে যাতায়াত করছে। অন্যান্য বাসের মতোই এই বাসগুলোতেও যাত্রা বিরতিতে রয়েছে বুফে খাওয়ার সুবিধা। একই রুটে যেখানে ১২০০ টাকায় স্ক্যানিয়া, ভলভো বা সিঙ্গেল ম্যান বাসে যাতায়াত করা যাচ্ছে সেখানে আধুনিক এ বাসে মাত্র ১০০ টাকা বেশি নেওয়া হচ্ছে বলে জানায় কর্তৃপক্ষ।

গ্রীন লাইন পরিবহনের জেনারেল ম্যানেজার আব্দুস ছাত্তার বলেন, ‘আমরা আধুনিক গাড়ির সঙ্গে এ দেশের মানুষের পরিচয় করিয়ে দিতে চাই। এটা হচ্ছে পরিবর্তনের একটি বড় মাধ্যম। এর পরের ধাপে আরো আধুনিক কোনো গাড়ি আমাদের সার্ভিসে যুক্ত করার কথা চিন্তা করব।’

গত ২৬ আগস্ট সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে নতুন এ বাসগুলোর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।