নায়করাজের নতুন ঠিকানা সম্পূর্ণ প্রস্তুত। তাই চিরদিনের মতো ত্যাগ করবেন রাজধানীর গুলশান ২ এর ৫ নম্বর রোডের ৩৬ নম্বর বাড়ি ‌‘লক্ষী কুঞ্জ’।

নিজের অর্জিত আয়ে ‘লক্ষী কুঞ্জ’ নামের এই বাড়িটিতেই তিনি গড়েছিলেন নিজের আবাস। এতদিন এই ঠিকানাতেই পাওয়া যেত নায়ক রাজ্জাককে। কিন্তু দীর্ঘদিনের এই ঠিকানাটি পাল্টে ফেলেছেন তিনি। পৃথিবীর মায়া কাটিয়ে চিরদিনের মতো বিদায় নিয়েছেন রাজ্জাক। আর কখনো নীল আকাশের নিচে হাঁটবেন না, গাইবেন না কোনো অভিমানী গান। অনন্তকালের নিদ্রায় গিয়েছেন তিনি।

আগামীকাল সকাল ১০টার পর থেকেই তার নতুন ঠিকানা হবে কবর নং : ৩৬৬৯/১, বনানী কবরস্থান, বনানী, ঢাকা-১২১৩। খোঁজ নিয়ে দেখা গেল এরই মধ্যে নায়করাজের নতুন ঠিকানা সম্পূর্ণ প্রস্তুত। বনানী কবরস্থানে গিয়ে দেখা গেলো কবরস্থানের ভিতর এবং বাইরে তার ভক্তরা ভিড় জমাচ্ছেন। অনেকেই তাদের প্রিয় নায়করাজের শেষ ঠিকানাটি চোখের দেখা দেখতে আসছেন। আজ দুই দফা জানাজা অনুষ্ঠিত হয়েছে তার। কিন্তু দাফন হবে আগামীকাল সকাল ১০টায়। রাজধানীর গুলশানের আজাদ মসজিদে জানাজা শেষে ইউনাইটেড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে কিংবদন্তী নায়করাজ রাজ্জাকের মরদেহ। সেখান থেকে আগামীকাল বুধবার সকাল ১০ টায় বনানী কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

এই অভিনেতার মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বিএনপির চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াসহ বিভিন্ন অঙ্গনের ব্যক্তিত্বরা গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।