দ্বিতীয়বারের মতো হামলার শিকার হলেন ইমরান

আজ শুক্রবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে দ্বিতীয়বারের মতো হামলার শিকার হলেন ইমরান এইচ সরকার। একদল দুর্বৃত্তরা হামলা করে বলে অভিযোগ করেন তিনি। 

এর আগে গতকাল বিকেলে শাহবাগ মোড়ে হামলার শিকার হয়েছিলেন ইমরান। বন্যা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে সরকারে নিষ্ক্রিয়তার প্রতিবাদ ও ত্রাণ জোরদারের দাবিতে শাহবাগে মানববন্ধন শেষে তাঁর ওপর হামলা করা হয়েছিল।

গতকালের হামলার প্রতিবাদে আজ বিকেল চারটায় শাহবাগে বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে গণজাগরণ মঞ্চ। কিন্তু পুলিশ তাদের সেই কর্মসূচি পালন করতে দেয়নি। কর্মসূচি পালন করতে না পেরে তাঁরা ১০-১২ জন যখন হেঁটে পরিবাগের দিকে যাচ্ছিলেন, তখন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে আসার সঙ্গে সঙ্গে ১৫-২০ জন লোক অতর্কিতে তাঁদের ধাওয়া দেয়। তাঁরা দৌড়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতরে অবস্থান নেন।

ইমরান এইচ সরকার বলেন, হামলাকারীদের হাতে লাঠিসোঁটা ছিল। তারা ইটপাটকেল ছুড়েছে। তবে কেউ আহত হননি।
ইমরান এইচ সরকার বলেন, এর আগে আদালত প্রাঙ্গণে তাঁর ওপর হামলার করেছিলেন ছাত্রলীগের কর্মীরা। তাঁরা হুমকি দিয়ে রেখেছিলেন, যেখানে তাঁকে পাবেন, টুকরো টুকরো করা হবে। ইমরান বলেন, ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরাই বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার তাঁর ওপর হামলা করেছেন।

এদিকে বৃহস্পতিবার ইমরান এইচ সরকারের ওপর হামলার প্রতিবাদে শাহবাগ থানায় একটি মামলা করেছেন গণজাগরণ মঞ্চের কর্মী নাসির উদ্দিন। শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান বলেন, বৃহস্পতিবার রাতে অজ্ঞাতনামা ১০-১২ জনকে আসামি করে ওই মামলা করা হয়। ঘটনাটি তাঁরা খতিয়ে দেখছেন।