ইসির সংলাপে ১৪ গণমাধ্যম প্রতিনিধি অনুপস্থিত

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে গণমাধ্যম প্রতিনিধিদের সঙ্গে সংলাপে বসেছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি)। বুধবার সকাল সোয়া ১০টায় রাজধানীর আগারগাওঁয়ের নির্বাচন ভবনের সম্মেলন কক্ষে এ সংলাপ শুরু হয়েছে। সংলাপে চার নির্বাচন কমিশনারও উপস্থিত রয়েছেন।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদার সভাপতিত্বে সংলাপে ৩৭ জন প্রতিনিধির মধ্যে ২৪ জন উপস্থিত রয়েছেন। বাকি ১৪ জন গণমাধ্যম প্রতিনিধি সংলাপে যোগ দেননি।

সংলাপে উপস্থিত গণমাধ্যম প্রতিনিধিরা হলেন-
নিউএইজ সম্পাদক নূরুল কবীর, যুগান্তরের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক সাইফুল আলম, ইত্তেফাকের ব্যবস্থাপনা সম্পাদক আশিষ সৈকত, মানবজমিনের প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী, ভোরের কাগজ সম্পাদক শ্যামল দত্ত, আমাদের অর্থনীতি সম্পাদক নাঈমুল ইসলাম খান, বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজাম, যায়যায়দিন সম্পাদক কাজী রোকনুদ্দিন অাহমেদ, জাতীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি মুহাম্মদ শফিকুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিন, বিএফইউজের একাংশের সভাপতি মনজুরুল আহসান বুলবুল, মহাসচিব ওমর ফারুক, বিএফইউজের অপর অংশের মহাসচিব মোহাম্মদ আবদুল্লাহ, সাংবাদিক মাহফুজউল্লাহ, কাজী সিরাজ, আনিসুল হক, আমানুল্লাহ কবীর, সাপ্তাহিক সম্পাদক গোলাম মর্তুজা, কলাম লেখক বিভুরঞ্জন সরকার, মাহবুব কামাল, কলামনিস্ট সোহরাব হাসান প্রমুখ।

সংলাপে যেসব বিষয় আলোচনায় অগ্রাধিকার পাচ্ছে তা হলো-
গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ (আরপিও) বাংলা ভাষায় প্রণয়ন, ভোটে অবৈধ অর্থ ও পেশিশক্তির ব্যবহার বন্ধে আইনি সংস্কার, সংসদীয় এলাকার সীমানা নির্ধারণ, নির্বাচন প্রক্রিয়া সহজ করতে প্রয়োজনীয় সংস্কার করা, প্রবাসী ভোটারদের ভোটদান নিশ্চিত, নির্ভুল ভোটার তালিকা তৈরি এবং সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য রোডম্যাপের বাইরে অতিরিক্ত যে কোনা প্রস্তাবনা।

আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে ইসির ঘোষিত রোডম্যাপ অনুযায়ী এ সংলাপ করছে ইসি। এর আগে গত ৩১ জুলাই সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে সংলাপ করে ইসি।