মুলারের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির মামলায় সুইফটের প্রাথমিক জয় হলো। পপ তারকা টেইলর সুইফটের অভিযোগের বিরুদ্ধে নিজেকে নির্দোষ প্রমাণ করতে ব্যর্থ হয়েছেন মার্কিন রেডিও জকি ডেভিড মুলার।

পঞ্চাশোর্ধ রেডিও উপস্থাপক ডেভিড মুলারের বিরুদ্ধে পপ গায়িকা টেইলর সুইফটের আনা শ্লীলতাহানির মামলার শুনানি চলছে আদালতে। জানা যায়, শ্লীলতাহানির মামলায় সুইফটের অভিযোগের বিরুদ্ধে নিজেকে নির্দোষ প্রমাণ করতে পারেননি মুলার। সুইফটের আইনজীবীর জেরার মুখে মুলার বলেন, “হয়ত আমি তার (টেইলর সুইফট) পশ্চাৎ দেশের হাড় কিংবা ওরকম কোনো স্থানে স্পর্শ করে থাকতে পারি।”

তবে সুইফটের দাবি আরও গুরুতর। আদালতে দেওয়া জবানবন্দিতে এই তারকা বলেন, “কনসার্ট শুরুর আগে মুলার ও তার প্রেমিকা আমার সঙ্গে ছবি তুলতে দাঁড়ায়। সেসময় আমার স্কার্টের ভিতর হাত ঢুকিয়ে পশ্চাৎদেশ খামচে ধরেছিলো সে এবং বেশ জোরেই ধরেছিলো।” সুইফটের এ বক্তব্যের সত্যতা মেলে কর্তব্যরত এক নিরাপত্তারক্ষীর বর্ণনাতেও। তিনি মুলারকে সুইফটের স্কার্ট থেকে হাত সরিয়ে নিতে দেখেছেন বলে জানান। ঘটনার সময় বিব্রতকর পরিস্থিতি এড়াতে চুপ করে ছিলেন বলেও জানান এ সংগীত শিল্পী।

 দুই সপ্তাহের মধ্যেই মামলার চূড়ান্ত রায় দেওয়া হবে জানা গেছে।