সরকার ক্ষমতা হারানোর ভয়ে এখন ষড়যন্ত্র খুঁজছেঃ ফখরুল

সরকার এখনও পেছনে বন্দুক-পিস্তল নিয়ে জোর করে ক্ষমতায় বসে আছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বন্দুক-পিস্তল না থাকলে সরকার এক সেকেন্ডও রাস্তায় দাঁড়াতে পারবে না। সরকার ক্ষমতা হারানোর ভয়ে এখন ষড়যন্ত্র খুঁজছে।

শনিবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে জাতীয়তাবাদী যুবদল আয়োজিত দোয়া মাহফিলে তিনি এসব কথা বলেন। বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার রোগ মুক্তি কামনায় এ দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়। গত ৮ আগস্ট লন্ডনে খালেদা জিয়ার ডান চোখে সফল অস্ত্রোপচার সম্পন্ন হয়। চিকিৎসকদের পরামর্শে লন্ডনে অবস্থানরত বড় ছেলে বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বাসায় তিনি এখন বিশ্রামে আছেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, সংবিধানের রক্ষক হিসেবে ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায় দিয়ে অভিভাবকের মতোই কাজ করেছে সুপ্রিম কোর্ট। এটি একটি ঐতিহাসিক রায়। রাষ্ট্র যখন ধ্বংসের পথে তখন দায়িত্ববোধ থেকেই সুপ্রিম কোর্ট মুখ খুলেছে। এ রায়ের পর্যবেক্ষণের পর সরকারের ক্ষমতায় থাকার কোনো নৈতিক অধিকার নেই।

যুবদলের সভাপতি সাইফুল আলম নিরবের সভাপতিত্বে আরও বক্তব্য দেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম, সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী ও যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাহ উদ্দিন টুকু প্রমুখ।