দিনাজপুর বীরগঞ্জে খেলার মাঠে মাছ ধরায় ব্যাস্ত খেলোয়াড়

দিনাজপুর বীরগঞ্জ উপজেলার শতগ্রাম ইউনিয়নের গরফতু গ্রামের খেলার মাঠে ফুটবল ছেড়ে থৈ থৈ পানিতে নেমে পড়েছে মাছ ধরতে খেলোয়াড়রা।

গ্রামের শিশু কিশোর বিকাল হলেই যে মাঠে প্রতিদিন ফুটবল খেলতে একসাথে জমায়েত হয়। আজ একসাথে মিলে মজা করছে মাছ ধরতে। অধিক বৃষ্টিতে মাঠের পাশদিয়ে বয়ে যাওয়া নদীর পানি সাথে ঝাকে ঝাকে মাছ ঢুকেছে গরফতু গ্রামের এই ফুটবল খেলার মাঠে। আর দেরি করে, সবাই বাড়ি বাড়ি গিয়ে ফানদি জাল, ঠেলা জালসহ বিভিন্ন ভাবে মাছ ধরার জাল ও সামগ্রি নিয়ে নেমে পড়ছে মাছ ধরতে। প্রতিদিন খেলার পরিবর্তে আজ মাঠে দেখা গেল এক ভিন্ন চিত্র। গাঁয়ের এক যুবক বললেন, এই বৃষ্টির দিনে আমরা সাধারনত বাসায় বসে অলস দিন পার করি। মাছ যতটুকুই ধরি, সবাই মিলে মাঠে মাছ ধরতে এক অন্যরকম আনন্দ অনুভব হচ্ছে।

মাঠে মাছ ধরা দেখতে আসা সোলেমান নামের একজনের সাথে কথা হলে সে কাব্যিক ভাষায় বলে, আজ ২৭ শ্রাবন, এই শ্রাবনের অঝোর ধারাই হয়তো বইছে আমাদের গ্রামে। অনেক আগে এই সব মাছ ধরার চিত্র গ্রাম বাংলায় দেখা যেত। এখন আর সেই ভাবে লক্ষ্য করা যায় না। তাই ফুটবল মাঠে মাছ ধরতে দেখে একটু অবাক লাগছে পাশাপাশি খুব মজাও পাচ্ছি। মাছ ধরার ধুম পরেছে খেলার মাঠে।

এই রকম আকাশের অবস্থা থাকলে হয়তো গ্রামের এই ফুটবল মাঠে মাছ ধরার খেলোয়াড়ের সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে। সেই সাথে গ্রামের এই মাঠে ফুটবল খেলা দেখতে আসা দর্শক খেলার পরিবর্তে মাছ ধরার চিত্রটাও তাদের কিছুটা বিনোদন ঘটাবে।

 

ফখরুর হাসান পলাশ । দিনাজপুর প্রতিনিধি