অভিযোগ কোনো ব্যক্তি বিশেষের বিরুদ্ধে নয় ঃ গাজী রাকায়েত

নিয়ম ভেঙে বাংলাদেশে কাজ করার অভিযোগ এনে আজ বুধবার বনানী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন ছোট পর্দার ১৩ সংগঠনের জোট এফটিপিওর সদস্য সচিব নির্মাতা-অভিনেতা গাজী রাকায়েত। জিডিতে কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেতা পরমব্রত চ্যাটার্জী অভিনীত একটি নাটকের সংবাদকে উদ্ধৃতি হিসেবে তুলে ধরা হয়।

উক্ত জিডিতে ১লা আগস্ট প্রথম আলোয় প্রকাশিত অভিনেতা পরমব্রত চ্যাটার্জী অভিনীত একটি নাটকের সংবাদকে উদ্ধৃতি হিসেবে তুলে ধরেন ডিরেক্টরস গিল্ডের সভাপতি গাজী রাকায়েত। তাঁর মতে, পরমব্রত সরকারি অনুমোদন এবং দেশের বিভিন্ন সংগঠনের সঙ্গে কোনো রকম আলোচনা ছাড়াই বাংলাদেশের টিভি নাটকে নিয়মিত কাজ করে চলেছেন, যা কোনো ভাবেই মেনে নেওয়া যায় না।

গাজী রাকায়েতের ভাষ্য মতে, ‘আমাদের এই অভিযোগ কোনো ব্যক্তি বিশেষের বিরুদ্ধে নয়, পুরো সিস্টেমের বিরুদ্ধে। বেশ কিছুদিন ধরেই আমরা দেখতে পাচ্ছি, দেশের বাইরের শিল্পীরা পর্যটন ভিসায় এখানে এসে শুটিং করে চলেছেন। বাংলাদেশের যেসব প্রতিষ্ঠান দেশের বাইরের শিল্পীদের এনে কাজ করছে তারাও আমাদের যে সংগঠনগুলো আছে তাদের সঙ্গে কোনো আলাপ আলোচনা করছে না। বলা যায়, কোনো নিয়মের তোয়াক্কা তারা করছে না। অথচ আমাদের শিল্পীরা যখন দেশের বাইরে শুটিং করতে যায়, তখন সব ধরনের অনুমতি নিয়েই কাজ করতে হয়। আমরা যদি নিয়ম মেনে কাজ করি, তাহলে আমাদের দেশে আসা বাইরের শিল্পীরা কেন নিয়ম মানবেন না! এটা কি মগের মুল্লুক নাকি? মূলত নিয়ম না মানার সংস্কৃতি থেকে বের হয়ে আসতে আমাদের এই জিডি। বাইরের সব শিল্পী আমাদের সম্মানিত অতিথি। আমরা চাইব তাঁরা আমাদের দেশে এসে কাজ করুক। আমরা তাঁদের স্বাগত জানাতে সব সময় প্রস্তুত। কিন্তু সবকিছু যেন নিয়মের মধ্যে হয়, আমাদের দাবি এটুকুই। আমরা তথ্য মন্ত্রণালয়কেও এ বিষয়ে চিঠি দিয়েছি। মন্ত্রণালয় আমাদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করার কথা জানিয়েছে।’

শাহরিয়ার শাকিলের প্রযোজনায় ঢাকায় কয়েক দিন ধরে শুটিং চলছে সত্যজিৎ রায়ের ‘ফেলুদা’ সিরিজের গল্প থেকে নাটক বানানোর। ফেলুদা চরিত্রে দেখা যাবে কলকাতার পরমব্রত চ্যাটার্জী।