ঢাকায় বিভিন্ন স্থানে কয়েকদিন যাবৎ ঘুরে বেড়াতে দেখা যাচ্ছে বিখ্যাত ‘ফেলুদা’ চরিত্র, কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেতা পরমব্রত চট্টোপাধ্যায়কে। কারণ ঢাকায় নির্মিত হচ্ছে সত্যজিৎ রায়ের ‘ফেলুদা’ সিরিজের গল্প থেকে নাটক। ঢাকায় বা এদেশের টেলিভিশনের জন্য নির্মিত হলেও ফেলুদা চরিত্রে দেখা যাবে কলকাতার এই জনপ্রিয় অভিনেতাকেই।

কয়েক দিন ধরে রাজধানীর বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়াচ্ছেন সত্যজিতের তৈরি চরিত্র ‘ফেলুদা’। ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়েই উন্মোচন করছেন নানা ধরনের রহস্য। হোক সেটা ‘শেয়াল দেবতার রহস্য’ বা ‘ঘুরঘুটিয়ার ঘটনা’। কিন্তু মজার ব্যাপার হলো ‘তোপসে’ চরিত্রে এর আগে অভিনয় করেছেন পরম। সত্যজিতের ছেলে সন্দীপ রায়ের বোম্বাইয়ের বোম্বেটে, কৈলাসে কেলেঙ্কারি, টিনটোরেটোর যীশু ছবিতে ‘তোপসে’ হয়েছিলেন পরম। আর ফেলুদা ছিলেন সব্যসাচী চবক্রবর্তী।

গত শনিবার পরম ছিলেন ঢাকার বসুন্ধরার ৩০০ ফিট এলাকায়। গতকাল সোমবার ছিলেন আগারগাঁওয়ের একটি সরকারি অফিসের ভবনে। সন্দীপ রায়ের কাছ থেকে ফেলুদা সিরিজের সব কটি গল্পের টিভিস্বত্ব কিনে নিয়েছে বাংলাদেশি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ক্যান্ডি প্রোডাকশন ও টম ক্রিয়েশন। তারপর থেকেই শুরু হয়েছে নির্মাণ কাজ। পরমের সঙ্গে বাংলাদেশের অভিনেতারাও আছেন ফেলুদার দলে। ক্যান্ডি প্রোডাকশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহরিয়ার শাকিল বলেন, ‘আমরা ঈদের জন্য দুটি গল্প বাছাই করেছি। শুরুতে শেয়াল দেবতার রহস্য–এর শুটিং শুরু হয়েছে। পরে ঘুরঘুটিয়ার ঘটনার শুটিং হবে।’

শাহরিয়ার শাকিল আরও জানান, একেকটি গল্প থেকে ৯০ মিনিটের নাটক নির্মাণ করা হচ্ছে। এটি দুই বা চার পর্বে ভাগ করে প্রচারিত হবে একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলে। আসছে ঈদুল আজহায় শুরু হবে প্রথম প্রচার। মাস খানেক বিরতি দিয়ে পর্দায় আসবে নতুন গল্প। তিনি বলেন, ১৬ আগস্ট সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে বিস্তারিত জানানো হবে। এদিন পরমব্রতসহ সন্দীপ রায় উপস্থিত থাকবেন।

এবারে গোয়েন্দা পরমের সহকারী ‘তোপসে’ চরিত্রে থাকছেন কলকাতার অভিনেতা কৌশিক সেনের ছেলে ঋদ্ধি সেন।