স্মৃতিভ্রমের  কারণ সাধারণত ভিটামিন বি-এর অভাব। স্মৃতিভ্রম বা ডিমেনসিয়ার ফলে রোগীর স্মৃতিশক্তি ধীরে ধীরে কমতে থাকে। ধূমপান, মদ্যপান, মস্তিষ্কের রোগ ইত্যাদির কারণে আমাদের মধ্যে স্মৃতিভ্রম দেখা দেয়। এছাড়া এই অসুখের কোনো নির্দিষ্ট বয়স নেই। অর্থাৎ, যেকোনো বয়সেই দেখা দিতে পারে স্মৃতিভ্রম।

কিন্তু কীভাবে বুঝবেন যে আপনার মধ্যে স্মৃতিভ্রম দেখা দিচ্ছে? আসুন জেনে নিন সেই লক্ষণগুলো-

১) এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিরা বেশির ভাগ সময়েই কনফিউশনে ভোগেন। যেমন, কোনও কিছু মনে করা, কিছু বিচার বিবেচনা করার সময়ে কনফিউশন দেখা দেয়।

২) পছন্দের বিষয়, পছন্দের জিনিস, খেলা, মজায় আগ্রহ হারিয়ে ফেলা, বন্ধু কিংবা পরিবারের লোকেদের সঙ্গে সময় কাটানোয় অনিচ্ছা বোধ করলে বুঝতে হবে সেই ব্যক্তির মধ্যে স্মৃতিভ্রম গ্রাস করেছে।

৩) কোনও কিছু মনে না করতে পারা স্মৃতিভ্রমের লক্ষণ। খুব কম সময়ের মধ্যেই কোনও কিছু ভুলে গেলে তা আরও প্রকট হতে পারে। খেয়াল রাখবেন, খুব পুরনো কোনও কিছু নয়, এমনকী ব্রেকফাস্টে কী খেয়েছেন, তাও যদি মনে করতে না পারেন, তাহলে বুঝতে হবে আপনি স্মৃতিভ্রম রোগে আক্রান্ত।

৪) স্মৃতিভ্রমের আরেকটি লক্ষণ হলো, অনেক সময়েই আমরা কোনও একটি শব্দ বা কথা মনে করতে পারি না, কিংবা কোনও কিছু বোঝাতে গিয়ে সঠিক শব্দটি কিছুতেই মনে করতে পারি না। এমন হলে বুঝতে হবে আপনার স্মৃতিশক্তি দুর্বল হয়ে গিয়েছে।

৫) স্মৃতিভ্রমে আক্রান্ত ব্যক্তি একই কাজ বারবার করতে থাকেন। কারণ তার মনেই থাকেন না, যে তিনি সেই কাজটি আগেই করে ফেলেছেন।

৬) স্মৃতিভ্রমে আক্রান্ত ব্যক্তি খুব সহজ এবং সাধারণ কাজও শেষ করতে অনেক সময় নেন। যেমন পরিবারের কোনও কাজ কিংবা রুটিন মেনে চলা।

৭) হঠাৎ হঠাৎ মুড বদলে যাওয়াও স্মৃতিভ্রমের অন্যতম লক্ষণ। হঠাৎ যদি কোনও ব্যক্তি হতাশা হয়ে পড়েন, তাহলে বুঝতে হবে সেই ব্যক্তি স্মৃতিভ্রমে আক্রান্ত।